আ. লীগ নেতাকে কুপিয়ে জখম, ছাত্রলীগ নেতা কারাগারে

প্রকাশ : ০৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১৭:৫৭ | আপডেট : ০৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১৮:০০

কেন্দুয়া (নেত্রকোনা) প্রতিনিধি

নেত্রকোনার কেন্দুয়ায় আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও পৌরসভার সাবেক কাউন্সিলর অঞ্জন সরকার অঞ্জুকে কুপিয়ে জখম করার ঘটনায় সোমবার রাতে কেন্দুয়া থানায় মামলা হয়েছে। অঞ্জন সরকারের ভাতিজা লিটন সরকার বাদী হয়ে অন্নদাপুর গ্রামের মৃত লাল মিয়ার ছেলে ছাত্রলীগ নেতা দাবীদার ফেরদৌসকে প্রধান আসামী করে ৫ জনের বিরুদ্ধে কেন্দুয়া থানায় মামলাটি দায়ের করেন। 

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা কেন্দুয়া থানার এসআই রোকন উদ্দিন জানান, প্রধান আসামী ফেরদৌসকে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। আহত অঞ্জন সরকারের ভাতিজা লিটন সরকার বাদী হয়ে কেন্দুয়া পৌরসভাধীন অন্নদাপুর গ্রামের ফেরদৌসসহ ৫ জনের নামে ১৪৩/৩৪১/৩২৩/৩২৪/৩২৬/৩০৭/৩৭৯ ধারায় মামলা দায়ের করেন। 

অন্য আসামীরা হলেন- অন্নদাপুর গ্রামের নায়েব আলীর ছেলে মানিক মিয়া, আইন উদ্দিনের ছেলে মতিন, আব্দুর রশিদের ছেলে রোকন ও রুক্তন। পলাতক আসামীদের গ্রেফতারের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে বলে জানিয়েছেন এসআই রোকন।

প্রসঙ্গত, সোমবার দুপুরে বাড়ি থেকে আসার পথে আওয়ামী লীগ নেতা ও সাবেক পৌর কাউন্সিলর অঞ্জন সরকারকে ফেরদৌস আহম্মদ ও তার লোকজন তাদের বাড়ির সামনে পেয়ে পূর্ববিরোধের জেরে কুপিয়ে মারাত্বক আহত করে। পরে পুলিশ অভিযান চালিয়ে ফেরদৌসকে আটক করে আদালতে সোপর্দ করে। আহত অঞ্জন সরকার ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। 

পিডিএসও/ এআই