রূপগঞ্জে সন্ত্রাসীদের হামলা, ভাঙচুর ও লুটপাট

প্রকাশ : ১৪ জুলাই ২০১৮, ১৬:০৫

আল-আমিন মিন্টু, রূপগঞ্জ(নারায়ণগঞ্জ)

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে আমজাদ ইলেট্রিক ও ওবায়দুল টেলিকম দুই ভাইয়ের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে স্থানীয় সন্ত্রাসীরা ব্যপক ভাঙচুর, হামলা, লুটপাট চালিয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। শুক্রবার উপজেলার তারাব পৌরসভার রূপসী এলাকায় রাত পোনে ১০টার দিকে আমজাদ ইলেট্রিক ও ওবায়দুল টেলিকম নামের দুই ভাইয়ের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে স্থানীয় সন্ত্রাসীরা ব্যপক ভাঙচুর, হামলা, লুটপাট চালায়।

ব্যবসায়ী আমজাদ হোসেন বাবু জানান, রূপসী মধ্যপাড়া বাজুইনা বাড়ির মৃত ফরিদ বাজুইনার ছেলে রাজু (২৮), সাজু (২৫, একই এলাকার আব্দুর রহমান ড্রাইভারের ছেলে নবী (৩৮, মৃত আব্দুল হামিদের ছেলে সম্রাট (২৬), মৃত হাবিবুল্লার ছেলে সোহেলসহ ১২/১৫ জন সন্ত্রাসী পিস্তল, রামদা দেশীয় অস্ত্র-সস্ত্রে সজ্জিত হয়ে হামলা, ভাঙচুর,  লুটপাট চালায়। এসময় প্রাণ বাঁচাতে আমি দৌড়ে পালিয়ে যাই। দোকানে থাকা নগদ টাকা, মূল্যবান জিনিসপত্রসহ প্রায় সাড়ে ৩ লাখ টাকার ক্ষতি সাধন করে।

বিকাশ ব্যবসায়ী ওবায়দুল টেলিকমের মালিক ওবায়দুল হোসেন জানান, রামদা, চাপাতি দিয়ে কুপিয়ে ব্যপক ভাঙচুর চালিয়ে আমাকে মারধর করে সাথে থাকা প্রায় ২ লাখ ৬০ হাজার টাকা ছিনিয়ে নিয়ে যায়।

প্রত্যক্ষদর্শী সেলিম, ছনিয়া আকতার, তমিজউদ্দিন জানান, দোকানের সামনে ২টা সিএনজি, মোটরসাইকেল এসে থামল। কয়েক মিনিটের মধ্যে হামলা, ভাঙচুর চালিয়ে চলে যায়। তাদের হাতে রামদা, চাপাতি দেখে আমরা ভয়ে আতঙ্কৃত হয়ে পড়ি। 

রূপগঞ্জ থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক এসআই রিপন সরকার জানান, দুইটা দোকানেই ব্যপক ভাংচুর দেখা গেছে। ঘটনার সত্যতা পাওয়া গেছে। কয়েকজনের নামে অভিযোগ পেয়েছি। উর্ধতন কর্মকর্তাকে এ বিষয়ে জানানো হবে।

রূপগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি মনিরুজ্জামান মনির জানান, ঘটনার সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়েছি। তদন্ত করে প্রকৃত অপরাধীদের আইনের আওতায় আনা হবে। এ ঘটনায় বাদী পক্ষ থানায় এসে অভিযোগ করেছেন।

পিডিএসও/রিহাব