মায়ের জন্য পাত্র খুঁজছেন মেয়ে!

প্রকাশ : ০৪ নভেম্বর ২০১৯, ১৬:৩৯ | আপডেট : ০৪ নভেম্বর ২০১৯, ১৭:২৮

অনলাইন ডেস্ক

সন্তান উপযুক্ত বয়সে পৌঁছালে তার বিয়ে দেওয়ার দায়িত্ব বাবা-মায়ের ওপরই পড়ে। পাত্র-পাত্রী দেখার দায়িত্ব তারাই শুরু করেন। তারপর তাদের বিয়ে হয়। তবে সমাজের কোনো নিয়মই মনে হয় অপরিবর্তনীয় নয়। কালের ব্যবধানে প্রতিষ্ঠিত নিয়মও পাল্টে যায়।

তারই একটি জ্বলন্ত উদাহরণ পার্শ্ববর্তী দেশ ভারতের আইনের ছাত্রী আস্থা ভার্মা। তিনি তার মায়ের জন্য পাত্র খুঁজছেন। পাত্রের খোঁজে টুইটারে পোস্টও দিয়েছেন তিনি।

টুইটারে গ্রুমহান্টিং হ্যাশট্যাগ দিয়ে তিনি লিখেছেন, ‘মায়ের জন্য ৫০ বছরের একজন হ্যান্ডসাম পুরুষ খুঁজছি। তাকে অবশ্যই নিরামিষভোজী হতে হবে। মদ্যপান চলবে না এবং প্রতিষ্ঠিত হতে হবে।’

‘মায়ের বিয়ে’ সিনেমার কথাটা মনে আছে নিশ্চয়? বাংলা ছবিটিতে মায়ের বিয়ে দেওয়ার জন্য আদাজল খেয়ে লেগেছিল মেয়ে। রিল লাইফের মতো এবার রিয়েল লাইফেও ঠিক একই উদ্যোগ নিয়েছেন আইনি পড়ুয়া এই মেয়ে। তার এ পোস্টে প্রশংসাও করেছেন অনেকে।

মেয়ের পাত্র খোঁজার কাজে মা যে সঙ্গে আছেন, তা আস্থার পোস্ট করা ছবিতেই স্পষ্ট। তাকে বেশ হাস্যোজ্জ্বল দেখা যাচ্ছে।

এর আগে ২০১৫ সালে ছেলের জন্য পাত্রের সন্ধান করায় শিরোনামে উঠে এসেছিলেন এক মা। ছেলের সমকামীকে স্বীকৃতি দেওয়ায় প্রশংসা কুড়িয়েছিলেন তিনি। এবার ভারচুয়াল দুনিয়ার আশীর্বাদ ও ভালোবাসা পেলেন আস্থা। তবে তিনি মায়ের জন্য এখন পর্যন্ত পাত্র পেয়েছেন কি না, তা অবশ্য এখনো জানা যায়নি।

পিডিএসও/তাজ