ফাঁদে আটকা গন্ধগোকুল

প্রকাশ : ০৫ ডিসেম্বর ২০১৮, ১০:০০

বগুড়া প্রতিনিধি
ama ami

বগুড়ায় বিপন্ন প্রজাতির গন্ধগোকুল নামের প্রাণী ধরা হয়েছে। গাবতলী উপজেলার চককাতলি গ্রামের ইমরান হোসেনের কাছ থেকে গতকাল মঙ্গলবার প্রাণীটিকে উদ্ধার করে সরকারি আজিজুল হক কলেজের শিক্ষার্থীদের সংগঠন টিম ফর এনার্জি অ্যান্ড ইনভায়রনমেন্টাল রিসার্চ (তীর)। গন্ধগোকুলটি কলার বাগানে কলা খেয়ে যেত। কলা রক্ষা করতে পেতে রাখা ফাঁদে আটকা পড়ে গন্ধগোকুলটি। গন্ধগোকুলটি সিরাজগঞ্জের যমুনা পারের বঙ্গবন্ধু ইকো পার্কের কর্তৃপক্ষের কাছে হস্তান্তর করা হবে বলে জানান তীরের সংগঠকরা। এটিকে আজ বুধবার সিরাজগঞ্জে পাঠানো হবে।

তীরের সদস্যরা জানান, বগুড়ায় উদ্ধার হওয়া নিশাচর ও স্তন্যপায়ী প্রাণী গন্ধগোকুলটির ওজন প্রায় চার কেজি। এটি সুস্থ রয়েছে। উদ্ধার হওয়া গন্ধগোকুলটি দেখতে বিড়ালের মতো। পশম ধুসর। শরীরে বিভিন্ন ধরনের রঙের ছোপ ছোপ দাগ আছে। এরা একাকী নির্জন পরিবেশে থাকতে পছন্দ করে। সাধারণত গভীর রাতে শিকার এবং খাবার সংগ্রহের উদ্দেশে বের হয়।

গন্ধগোকুল সর্বভুক হলেও সে মাংসাশী প্রাণী। ইঁদুরও যেমন খায়, তেমনি আবার আম, আনারস, তরমুজ, কলা, ছোট পাখি, টিকটিকি, ছোট সাপ, ব্যাঙ খেয়ে বেঁচে থাকে। তীরের সদস্যরা খাঁচায় ভরে গন্ধগোকুলটি নিয়ে যাবে সিরাজগঞ্জের ইকো পার্কে।

তীরের সভাপতি আরাফাত রহমান জানান, ইমরানের কলাবাগানের কলা খেয়ে যেত প্রাণীটি। তাই কলা রক্ষায় সে ফাঁদ পাতে। সেই ফাঁদে গন্ধগোকুল আটকা পড়ে। এরপর তারা খবর দিলে সেটি উদ্ধার করে নিরাপদ আশ্রয়ের জন্য সিরাজগঞ্জের যমুনা বঙ্গবন্ধু ইকো পার্কে হস্তান্তর করা হবে। এই গন্ধগোকুলটিকে ধরা হয় গত রোববার।

পিডিএসও/হেলাল