মালামাল সরাতে খুলে দেওয়া হলো বিজিএমইএ ভবন

প্রকাশ : ১৮ এপ্রিল ২০১৯, ১৩:২৮

অনলাইন ডেস্ক

রাজধানীর হাতিরঝিলে বিজিএমই ভবন ভেঙে ফেলার জন্য সিলগালা করে দেওয়ার একদিন পর আবারও মালামাল সরিয়ে নেওয়ার জন্য সময় দেওয়া হয়েছে। আজকের মধ্যেই সব মালপত্র সরিয়ে নিতে হবে। এরপর আর সময় দেয়া হবে না বলে জানিয়েছে রাজউক।

সকাল ১১টার দিকে বিজিএমইএ ভবন খুলে দিয়েছে রাজউক। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন হাতিরঝিল প্রকল্পের প্রকল্প পরিচালক এ এস এম রায়হানুল ফেরদৌস। তালা খুলে দেয়ার পর সেখানকার মালামাল সরিয়ে নিচ্ছে সংশ্লিষ্টরা। 

রাজউকের প্রধান প্রকৌশলী এ এস এম রায়হানুল ফেরদৌস বলেন, মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ভবনটি সিলগালা করে দেওয়া হলেও কিছু প্রতিষ্ঠানের মালপত্র থেকে গিয়েছিল। বিকাল ৫টার মধ্যে সেগুলো সরিয়ে নেওয়ার সুযোগ দেওয়া হয়েছে।  

রাজউকের পরিচালক ওয়ালিউর রহমান সাংবাদিকদের বলেন, যারা মালামাল সরিয়ে নিতে আবারও আবেদন করেছেন তাদের জন্য আমরা আজকে তালা খুলে দিয়েছি৷ তারা আজ সারাদিন মালামাল সরিয়ে নেওয়ার সুযোগ পাবেন। তবে আজকেও যদি মালামাল সরিয়ে নেওয়া শেষ না হয়, তারা আবেদন করলে আমরা ২৪ এপ্রিল পর্যন্ত সময় দেব।

এদিকে সর্বোচ্চ আদালত বিজিএমইএ ভবন ভাঙার রায় দেওয়ার পর কয়েক দফায় সময় নিয়েছিলেন তৈরি পোশাক রপ্তানিকারকরা। সবশেষ আদালতের দেওয়া ৭ মাস সময়সীমা গত ১২ এপ্রিল শেষ হয়।

পরে গত মঙ্গলবার সকালে ভাঙার যন্ত্রপাতি ও আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের নিয়ে বিজিএমইএ ভবনের সামনে উপস্থিত হন রাজউকের কর্মকর্তারা। ভবনটির বিভিন্ন তলায় থাকা ১৯টি প্রতিষ্ঠানের মালামাল সরিয়ে নিতে সেদিন বিকাল পর্যন্ত সময় দেওয়া হয়। পরে সময় বাড়িয়ে সুযোগ দেওয়া হয় সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত। এরপর বিভিন্ন ফ্লোরে তালা দিয়ে ভবনের নিয়ন্ত্রণ নেয় রাজউক। মূল ফটকেও তালা দিয়ে সিলগালা করে দেওয়া হয়।

পিডিএসও/তাজ