রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণ প্রকল্প

আবাসিক ভবন নির্মাণে ব্যয় ২০০ কোটি টাকা

সরকারি ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠকে ১৮ ক্রয় প্রস্তাব অনুমোদন

প্রকাশ : ১৩ জুন ২০১৮, ০০:০০

নিজস্ব প্রতিবেদক

রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণ শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় আবাসিক ভবন নির্মাণ করা হচ্ছে। ১৬ তলা আবাসিক ভবন নির্মাণকাজের একটি ক্রয় প্রস্তাব গতকাল মঙ্গলবার সরকারি ক্রয়সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠকে অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। ওই প্রকল্পে ব্যয় হবে ২০০ কোটি টাকা। এটিসহ মোট ৩ হাজার ১৩৬ কোটি ৪৫ লাখ টাকা ব্যয়ে ১৮টি ক্রয় প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। সরকারি ক্রয়সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটিতে সভাপতিত্ব করেন শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু। বৈঠক শেষে অনুমোদিত ক্রয় প্রস্তাবের বিভিন্ন দিক তুলে ধনের মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের অতিরিক্ত সচিব মোস্তাফিজুর রহমান।

অতিরিক্ত সচিব মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, রূপপুর পারমানবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণ শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় আবাসন পল্লি এলাকায় ২০ তলা ভিত্তির প্রতি তলায় ৪ ইউনিট বিশিষ্ট ১৫০০ বর্গফুট আয়তনের ১৬ তলা আবাসিক ভবন নির্মাণ করা হবে। এ-সংক্রান্ত কাজের ক্রয় প্রস্তাবে অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। এ প্রকল্পে ব্যয় হবে ২০০ কোটি ৫১ লাখ টাকা।

তিনি বলেন, গণপূর্ত অধিদপ্তর কর্তৃক বাস্তবায়নাধীন ‘আজিমপুর সরকারি কলোনীতে বহুতল আবাসিক ববন নির্মান’ শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় ‘দুটি ২০ তলা ভবন নির্মানের বিভিন্ন কাজের ভেরিয়েশন প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। প্রকল্পের মোট ব্যয় ধরা হয়েছিল ৫৭ কোটি ৪৩ লাখ টাকা। প্রকল্পে অতিরিক্ত ৯ কোটি ৪৮ লাখ টাকার অতিরিক্ত ব্যয় হওয়ায় মোট ব্যয় দাঁড়িয়েছে ৬৬ কোটি ৯১ লাখ টাকা।

মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, বাংলাদেশ পল্লি বিদ্যুতায়ন বোর্ডেও ‘পল্লি বিদ্যুতায়ন সম্প্রসারণের মাধ্যমে ১৫ লাখ গ্রাহক সংযোগ ’শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় ১৭ হাজার ৬৬টি ডিস্ট্রিবিউশন ট্রান্সফরমার ক্রয়ের প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। এতে ব্যয় হবে ১০৪ কোটি ৫১ লাখ টাকা।

বৈঠকে বাংলাদেশ পল্লি বিদ্যুতায়ন বোর্ডের ‘সিলেট বিভাগ পল্লি বিদ্যুতায়ন কার্যক্রম সম্প্রসারন এবং বিআরইবি-এর সদর দপ্তরে ভৌত সুবিধাদির উন্নয়ন’ শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় ২৪ হাজার ৭০৭টি এসপিসি পোল ক্রয়ের প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। এতে ব্যয় হবে ৫০ কোটি ৫৭লাখ টাকা।

তিনি বলেন, বাংলাদেশ পল্লি বিদ্যুতায়ন বোর্ডেও ‘পল্লি বিদ্যুতায়ন সম্প্রসারেনর মাধ্যমে ১৫ লাখ গ্রাহক সংযোগ’ শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় ৮৪ হাজার ৮৬২টি এসপিসি পোল ক্রয়ের প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। দুটি লটে এসব পোল ক্রয়ে মোট ব্যয় হবে ১৭৫ কোটি ৮৮ লাখ ৯৩ হাজার টাকা।

বাংলাদেশ বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ডের আওতাধীন গোপালগঞ্জ ১০০ মেগাওয়াট পিকিং বিদ্যুৎকেন্দ্রের সুষ্ঠু পরিচালনা ও সংরক্ষনের জন্য খুচরা যন্ত্রাংশ এবং তৎসংশ্লিষ্ট বিশেষজ্ঞ সেবা সংগ্রহের লক্ষ্যে ক্রয় প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে বলে জানান অতিরিক্ত সচিব। এ জন্য ব্যয় হবে ৭০ কোটি ৫৮ লাখ টাকা।

"