হাদা সেন্দোর কবিতা

চাঁদের আলোয় যাযাবর গান

প্রকাশ : ২৪ জানুয়ারি ২০২০, ০০:০০

হাদা সেন্দো মঙ্গোলিয়ান কবি এবং অনুবাদক। তিনি ১৯৬১ সালের ২৪ অক্টোবর মঙ্গোলিয়ার দক্ষিণাঞ্চলে জন্মগ্রহণ করেন। বর্তমানে এই অঞ্চলটি ইনার মঙ্গোলিয়া নামে পরিচিত। সেন্দো শিশুকাল কাটিয়েছেন ইনার মঙ্গোলিয়া অঞ্চলের সিলিগোল শহরে। বাবা ছিলেন স্থানীয় নাট্যদলের প্রধান আর মা ছিলেন এই নাট্যদলের অভিনেত্রী। সেন্দো যখন অনেক ছোট, তখন তার বাবা পরিবার নিয়ে দক্ষিণ মঙ্গোলিয়ার দালানহার পর্বতমালার কাছাকাছি চলে আসেন। এখানেই সেন্দোর বাল্যকাল কাটে। দালানহার পর্বতমালার কাছে স্থানীয় বিদ্যালয়ে পুরাতন মঙ্গোলিয়ান ও চাইনিজ ভাষায় লেখাপড়া করেন। স্কুলের লেখাপড়া সেন্দোকে বেশি দিন মুগ্ধ করে রাখতে পারেনি, বরং স্কুল অল্প দিনেই তাকে ক্লান্ত করে তুলেছিল। এজন্য কিছুদিন পরে লেখাপড়ার পাঠ চুকিয়ে সেন্দো স্কুল ছেড়ে স্তেপ তৃণভূমি অঞ্চলে চলে আসেন।

হাদা সেন্দো ১৯৮৪ সাল পর্যন্ত এই অঞ্চলে যাযাবর জীবনযাপন করেন। ১৯৮৪ সালের শেষের দিকে সেন্দোর বাবা তাকে আর্ট ইনস্টিটিউটে চাকরি নেওয়ার পরামর্শ দেন। চাকরিতে যোগ দেওয়ার কিছুদিন পরেই সেন্দো আর্ট ইনস্টিটিউটের সম্পাদকীয় সহকারী পদে কাজ করার সুযোগ পান।

হাদা সেন্দো তরুণ বয়সে প্রচুর পরিমাণে মঙ্গোলিয়ান সাহিত্য পড়ার সুযোগ পেয়েছিলেন। অবশ্যই এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য ছিলÑ মঙ্গোলিয়ান ধ্রুপদী সাহিত্য, মহাকাব্য এবং জাঙ্গারের মতো কাব্যিক মহাকাব্য। এই বয়সে নিবিড়ভাবে পাঠ করেন মঙ্গোলিয়ান লোকগান এবং আধুনিকতাবাদী কবিতা (ঝযঁষবম)। ১৯৮৯ সালে সেন্দো প্রকাশ করেন প্রথম কাব্য সংকলন ঞযব ঘড়সধফরপ ঝড়হমং ধহফ গড়ড়হষরমযঃ.

সেন্দো ১৯৯১ সালে সিলিগোল শহর ছেড়ে চলে আসেন মঙ্গোলিয়ার উত্তরাঞ্চলে রাজধানী উলানবাটোর শহরে। এখানেই সাহিত্যের অধ্যাপক হিসেবে বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ান।

 

ছোট্ট হলুদ ফুল

 

ছোট্ট হলুদ ফুল

জুন মাসের মৃদু বাতাসে দুলছে

আমি মনে করি তুমি অসুখী হবে না

যখন দেখবে আমি তোমার দিকে ছুটে আসছি

এমনকি আকাশের অর্ধাংশ এবং তার নির্জনতার শিলালিপি

এখনো সতেজ এবং জীবন্ত

 

স্যাংদু, তুমি কি আমার ক্লান্ত গলার স্বর শুনতে পাও

দ্রুত দৌড়ে যাওয়া টাট্টু ঘোড়ার শ্বাস-প্রশ্বাসের মতো

ছোট্ট হলুদ ফুল

আমার ধারণা তোমাকে স্পর্শ করা যাবে

যখন তুমি জানবেÑ আমি তোমাকে গভীরভাবে ভালোবাসি।

 

জীবনের উপহার

(দাতোর প্রতি)

 

আমাদের প্রতিবার দেখা মানেই অভিবাদন

প্রতিবার বিদায় মানেই আবার দেখা হবে

প্রতিবার মৃত্যু মানে পুনর্জন্ম

শরীরে একটি ছোঁয়া মানেই হৃদয়ের জন্য স্নেহস্পর্শ

একজোড়া চোখ মানেই ভাষা

 

হৃদয়ের প্রতিটি স্তর অবারিত হবে

প্রতিটি চুম্বন হয়তো হতাশ হবে

একটি কবিতা এক ফোঁটা শিশির বিন্দু

যেকোনো যন্ত্রণাই জীবনের অংশ

বসন্তের বৃষ্টি পৃথিবীকে ভালোবাসার বন্যায় ভাসিয়ে দেয়।

 

* দাতো জর্জিয়ান কবি ও বুদ্ধিজীবী। সেন্দোর ঘনিষ্ঠ বন্ধু।

 

তামির নদী

 

তামির, আমি জানি

তোমার পনি গাঢ় নীল

যেমন নীল আকাশ

 

এই গ্রীষ্মে, ঘোড়ার চোখ দিয়ে

আমি দেখেছি

তোমার শুকনা বুকে অনাবৃত নুড়ি

 

ঘোড়া, আমার অস্তিত্বÑ

আশ্রয়ের চোখে নীরব কান্না

আদি-অন্তহীন নীল আকাশের নিচে

 

* তামির মঙ্গোলিয়ার সব থেকে পুরাতন নদী। এই নদী মঙ্গোলিয়ার মানুষের কছে সব থেকে প্রিয়। বর্তমানে খনিজ সম্পদ আহরণ এবং জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে এই নদী তার সৌন্দর্য হারাচ্ছে।

 

অনুবাদ : অনন্ত উজ্জ্বল

 

"