বন্যা পরিস্থিতির অবনতি

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণকর্মীদের ছুটি বাতিল

প্রকাশ : ১৪ আগস্ট ২০১৭, ০০:০০

নিজস্ব প্রতিবেদক

টানা বৃষ্টিতে বন্যা পরিস্থিতির অবনতিতে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ কার্যক্রমের সঙ্গে জড়িত দেশের সব সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীর ছুটি বাতিল করেছে সরকার। গতকাল রোববার দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদফতর, ঘূর্ণিঝড় প্রস্তুতি কর্মসূচি (সিপিপি) এবং সংশ্লিষ্ট মাঠ পর্যায়ের সব কর্মকর্তা-কর্মচারীর ছুটি বাতিল করে এই অফিস আদেশ জারি করে। আদেশে বলা হয়, পরবর্তী আদেশ না দেওয়া পর্যন্ত দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে বিদ্যমান বন্যা পরিস্থিতিতে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয় এবং এর আওতাধীন অধিদফতর ও সংস্থার সব কর্মকর্তা-কর্মচারীর সার্বক্ষণিক দায়িত্বে নিয়োজিত থাকা জরুরি। ‘দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদফতর, ঘূর্ণিঝড় প্রস্তুতি কর্মসূচি (সিপিপি) এবং সংশ্লিষ্ট মাঠ পর্যায়ের সব কর্মকর্তা-কর্মচারীর সরকারি ছুটিসহ সব ধরনের ছুটি বাতিল করা হলো।’ সেই সঙ্গে যথাযথ কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া কর্মকর্তা-কর্মচারীদের কর্মস্থল ত্যাগ না করারও অনুরোধ জানানো হয়েছে সেখানে।

টানা বৃষ্টি আর উজানের ঢলে দেশের উত্তরাংশের বিভিন্ন জেলার প্রায় সব নদ-নদীর পানি বেড়ে চলেছে। ইতোমধ্যে কুড়িগ্রাম, নীলফামারীসহ উত্তরাঞ্চল ও জামালপুরের বন্যা পরিস্থিতির অবনতি হয়েছে।

 

তিন অববাহিকার সব নদীর পানি বৃদ্ধির প্রবণতা আরো কয়েক দিন অব্যাহত থাকতে পারে বলে আভাস দিয়েছে বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ কেন্দ্র।

মন্ত্রণালয়ের আলাদা আদেশে বলা হয়, দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে বন্যা পরিস্থিতিতে জরুরি কাজের জন্য দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদফতর এবং ঘূর্ণিঝড় প্রস্তুতি কর্মসূচির অফিস ১৪ ও ১৫ আগস্ট জন্মাষ্টমী ও জাতীয় শোক দিবসের সাধারণ ছুটির দিনও খোলা থাকবে। ১৪ আগস্ট যথাসময়ে এবং ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবস পালনের পরে অফিসে উপস্থিত থাকতে অনুরোধ করা হয়েছে।

"