ব্রিটেনে করোনায় আক্রান্ত বাংলাদেশি চিকিৎসকের মৃত্যু

প্রকাশ : ১১ এপ্রিল ২০২০, ০০:০০

প্রতিদিনের সংবাদ ডেস্ক

ব্রিটেনে স্বাস্থ্যকর্মীদের নিরাপত্তা নিশ্চিতে প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের কাছে পর্যাপ্ত পারসোনাল প্রটেকশন ইকুইপমেন্টের (পিপিই) আবেদন জানানো বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত চিকিৎসক আবদুল মাবুদ চৌধুরী করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। তিনি দেশটিতে করোনা মোকাবিলায় তৎপর চিকিৎসকদের অগ্রভাগে ছিলেন। গতকাল শুক্রবার আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম আল জাজিরার প্রতিবেদন থেকে তথ্য জানা যায়। ১৫ দিন কুইন্স হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থেকে গত বৃহস্পতিবার মারা যান আবদুল মাবুদ। তিনি পূর্ব লন্ডনের হ্যাকনের ‘হোমেরটন হাসপাতালের’ ইউরোলজি বিভাগের ঊর্ধ্বতন কনসালট্যান্ট ছিলেন। তার বয়স ছিল ৫৩ বছর।

মার্চের ১৮ তারিখ সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে এক খোলা চিঠিতে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের কাছে করোনা চিকিৎসায় ঝুঁকি নিয়ে কাজ করতে থাকা স্বাস্থ্যকর্মীদের জন্য আরো বেশি পিপিইর আবেদন জানান আবদুল মাবুদ। করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলায় স্বাস্থ্যকর্মীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা খুবই জরুরি বলে ওই পোস্টে উল্লেখ করেন তিনি।

চিঠিতে এ চিকিৎসক লেখেন, ‘প্রিয় প্রধানমন্ত্রী অনুগ্রহ করে জরুরি ভিত্তিতে প্রত্যেক ন্যাশনাল হেলথ সার্ভিস কর্মীর জন্য পিপিই নিশ্চিত করুন। স্বাস্থ্যকর্মীরা চিকিৎসা দিতে গিয়ে সরাসরি করোনা আক্রান্তদের সংস্পর্শে আসে। আর সবার মতো পরিবার, সন্তান নিয়ে বেঁচে থাকার অধিকার আমাদেরও আছে।’

আবদুল মাবুদকে ‘বীর’ আখ্যা দিয়ে হ্যাকনের মেয়র ফিলিপ গ্ল্যানভিলে বলেন, তিনি আমাদের সেবা দিতে গিয়ে মারা গেছেন। আবদুল মাবুদের স্ত্রী ও এক সন্তান রয়েছে। তার মৃত্যুতে গভীর শোক জানিয়েছে মুসলিম চিকিৎসকদের অ্যাসোসিয়েশন।

 

"