র‌্যাবের মারধরে জবির ৬ শিক্ষার্থী আহত

প্রকাশ : ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০০:০০

জবি প্রতিনিধি

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) উত্তরণ-২ বাসে যাতায়াতকারী শিক্ষার্থীদের ওপর সায়দাবাদে র‌্যাব-১০ এর টহলরত গাড়ির সদস্যরা হামলা করেছে। এতে ছয় শিক্ষার্থী আহত ও এক শিক্ষার্থীকে গাড়িতে তুলে নিয়ে পরে ছেড়ে দেওয়া হয়। বিষয়টি অনাকাক্সিক্ষত বলে র‌্যাব দায় স্বীকার করেছে।

গতকাল বৃস্পতিবার বিকাল পৌনে ৪টায় সায়দাবাদে মেয়র মোহাম্মদ হানিফ ফ্লাইওভারে উঠার সময় এ হামলার ঘটনা ঘটে।

উত্তরণ-২ বাসের শিক্ষার্থীরা জানান, বাসটি সায়দাবাদে ফ্লাইওভারে উঠার সময় র‌্যাব-১০ এর গাড়ি (ঢাকা মেট্রো চ-৫৩২২৩৭) ইউটার্ন নেওয়ার জন্য দাঁড়িয়ে ছিল। বিশ্ববিদ্যালয় বাসটি ফ্লাইওভারে উঠতে বাধা হয়ে দাঁড়ায়।

এ সময় বাসে যাতায়াতকারী ১১তম ব্যাচ ভূগোল বিভাগের শিক্ষার্থী শুভ র‌্যাবের গাড়িকে সরিয়ে দিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় বাসটিকে যাওয়ার জন্য সুযোগ দিতে বলেন। এ কথা বলায় র‌্যাব-১০ এর ড্রাইভার শিক্ষার্থীর সঙ্গে খারাপ ব্যবহার করলে বাগ্বিত-ার সৃষ্টি হয়। ফলে গাড়িতে থাকা র‌্যাবের অন্য সদস্যরা শুভকে মারধর করতে থাকে। বাসের অন্য শিক্ষার্থী এগিয়ে আসলে তাদেরও এলোপাতাড়ি মারধর করতে থাকে। মারধরের ফলে শুভ ও রবিউলসহ ১৩তম ব্যাচ সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষার্থী সোলাইমান, ১১তম ব্যাচ মার্কেটিং বিভাগের শিক্ষার্থী শরীফ ১৪তম ব্যাচ পদার্থ বিভাগের তৌসিফ এবং ১২তম ব্যাচ বাংলা বিভাগের আলআমিন আহত হন। আহতদের মধ্যে শুভ গুরুতর আহন হন। এ সময় ১১তম ব্যাচ ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের শিক্ষার্থী রবিউলকে গাড়িতে তুলে নিলেও তৎক্ষণাৎ ছেড়েও দেয় র‌্যাব। আহতদের ঢাকা মেডিকেলে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে রাতে বাসায় পাঠিয়ে দেওয়া হয়।

এ বিষয়ে র‌্যাব-১০ এর স্কোয়াড কমান্ডার ক্রাইম প্রিভেনশন কোম্পানি-১ এএসপি মো. শহিদুল হক মুন্সি প্রতিদিনের সংবাদকে বলেন, ঘটনার সময় আমি নিজেই উপস্থিত ছিলাম। আহত হওয়ার মতো এমন কোনো ঘটনা ঘটেনি তবে ঘটনাটি অনাকাক্সিক্ষত। একটি ছোট বিষয়কে নিয়ে নিজেদের অসম্মানি না করি। আহতদের সংখ্যার কথা জানালে উল্টো প্রশ্ন ছুড়ে দিয়ে বলেন কেন শিক্ষার্থীরা র‌্যাবের গাড়ির সামনে আসল?

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড. মোস্তফা কামাল এ বিষয়ে প্রতিদিনের সংবাদকে বলেন, আমরা র‌্যাবের মহাপরিচালক বেনজির আহমদের সঙ্গে কথা বলেছি। তিনি জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানিয়েছেন। অনাকাক্সিক্ষতভাবে ঘটনাটি ঘটেছে বলে র‌্যাব আমাকে জানায়। এ ছাড়াও তারা গত রোববার ক্যাম্পাসে এসে শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কথা বলবেন।

"