ফুলবাড়ীতে বিজিবি

দুই বছরে সীমান্তে ১১ কোটি টাকার অবৈধ পণ্য আটক

প্রকাশ : ১৬ আগস্ট ২০১৯, ০০:০০

ফুলবাড়ী (দিনাজপুর) প্রতিনিধি

ফুলবাড়ীতে ২৯-বিজিবি সীমান্ত এলাকায় গত সাত মাসে চোরাচালান অভিযান চালিয়ে ৬ কোটি ৪৫ লাখ ৬০ হাজার ৭৫৭ টাকার মাদকসহ বিভিন্ন পণ্য আটক করেন। চোরাকারবারির সঙ্গে জড়িত থাকায় ৪৬ জন চোরাকারবারির বিরুদ্ধে মামলা করেছেন বিজিবি। এর মধ্যে পলাতক রয়েছে ৯ জন। মোট ৫৫ জন আসামির বিরুদ্ধে ৪২টি মামলা দায়ের করেছেন।

অপরদিকে গত জানুয়ারি হতে ডিসেম্বর ২০১৮ইং তারিখ পর্যন্ত বিজিবি ধারাবাহিকতায় সীমান্তে চোরাচালান অভিযান চালিয়ে ৪ কোটি ৩৮ লাখ ৭৬ হাজার ৯১৬ টাকার মাদকসহ বিভিন্ন পণ্য আটক করেন। চোরাকারবারির সঙ্গে জড়িত থাকায় ৪৩ জনকে আটক করেন। এর মধ্যে পলাতক রয়েছে দুজন। মোট ৭৫ জন আসামির বিরুদ্ধে ৩৯টি মামলা দায়ের করেছেন। ফুলবাড়ী ২৯-বিজিবির আওতায় ৭৮ দশমিক ৫ কিলোমিটার সীমান্তের মধ্যে ১৬টি বিওপি, দুটি বিশেষ ক্যাম্পসহ মোট ১৮টি বিওপি রয়েছে। ওই এলাকায় বিশেষ টহল দল গত দুই বছর অভিযান চালিয়ে মোট ১০ কোটি ৮৪ লাখ ৩৭ হাজার ৬৭২ টাকার বিভিন্ন পণ্য আটক করেন। ফুলবাড়ী ২৯-বিজিবির অধিনায়ক লেফট্যানেন্ট কর্নেল মো. শরীফ উল্লাহ আবেদ, (এসজিপি) ব্যাটালিয়নের দায়িত্বভার গ্রহণ করার পর দিনরাত অক্লান্ত পরিশ্রম ও কঠোর হস্তে সীমান্তে চোরাচালান প্রতিরোধে অগ্রাণী ভূমিকা রেখে আসছেন।

এ বিষয়ে ২৯-বিজিবির অধিনায়ক লেফট্যানেন্ট কর্নেল মো. শরীফ উল্লাহ আবেদ জানান, নিয়মিতভাবে চোরাচালান, মাদক, সীমান্তে অবৈধ অনুপ্রবেশ, নারী, শিশু এবং মানব পাচার প্রতিরোধে জনসচেতনতামূলক সভার সমাবেশ করে এলাকার জনসাধারণকে প্রেরণা দান অব্যাহত রেখেছি। তিনি আরো জানান, প্রতিবেশী দেশের সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফের সঙ্গে সু-সম্পর্কের ফলে সীমান্তে বসবাসকারী জনসাধারণ নিরাপদে দিন অতিবাহিত করছে। আন্তঃসীমান্ত অপরাধ এবং বৈধ অনুপ্রবেশ প্রায় বন্ধ হয়ে গেছে।

"