ক্রিকেটারদের সাক্ষাৎ

বিশ্বকাপে আত্মবিশ্বাস নিয়ে খেলতে বললেন প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশ : ০১ মে ২০১৯, ০০:০০

ক্রীড়া প্রতিবেদক

আয়ারল্যান্ডে ত্রিদেশীয় সিরিজ ও বিশ্বকাপ খেলার উদ্দেশে দেশ ছাড়ার আগে ক্রীড়াপ্রেমী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন ক্রিকেটাররা। কাল দুপুর সাড়ে ১২টায় গণভবনে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাতের জন্য পৌঁছান তারা। সেখানে বিকেল ৩টা পর্যন্ত প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কাটিয়েছেন মাশরাফিরা। এ সময় ক্রিকেটারদের আত্মবিশ্বাস নিয়ে খেলার পরামর্শ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।

সাক্ষাৎ পর্বে জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের সঙ্গে আরো উপস্থিত ছিলেন বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনসহ বিসিবির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা। ক্রীড়াপ্রেমী হিসেবে বিশেষ সুনাম রয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার। খেলাধুলার প্রতি তার আগ্রহ বরাবরই প্রশংসনীয়। কাল সাক্ষাৎকালে মাশরাফিদের উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, ‘বিশ্বকাপে আত্মবিশ্বাস রেখে খেলবে। কোনো তাড়াহুড়োর প্রয়োজন নেই। লম্বা সময় সেখানে থাকতে হবে। মনোযোগ ধরে রাখবে।’

সাক্ষাৎ শেষে গণভবনে প্রধানমন্ত্রী ও ক্রিকেটাররা একসঙ্গে দুপুরের ভোজন পর্ব শেষ করেন। এরপর বিকেল ৩টার দিকে গণভবন থেকে বের হয়ে আসেন ক্রিকেটাররা।

প্রথমবারের মতো বিশ্বকাপ দলে সুযোগ পেয়েছেন মেহেদী হাসান মিরাজ। প্রধানমন্ত্রীর সাক্ষাৎ পেয়ে দারুণ রোমাঞ্চিত তরুণ এই স্পিনার। গণমাধ্যমকে তার অনুভূতির কথা জানাতে গিয়ে মিরাজ বলেছেন, ‘প্রধানমন্ত্রী আমাদের ডেকেছেন। আমরা ভালো কিছু সময় প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কাটিয়েছি। তিনি আমাদের ভয়হীন ক্রিকেট খেলার পরামর্শ দিয়েছেন। কোনো টেনশন করতে নিষেধ করেছেন। তার দোয়া নিতে পেরে খুব ভালো লাগছে।’

আজ ১৯ সদস্যের বাংলাদেশ দল আয়ারল্যান্ডের উদ্দেশে দেশ ছাড়বে। ৫ মে থেকে আয়ারল্যান্ডে অনুষ্ঠেয় ত্রিদেশীয় সিরিজে টাইগারদের প্রতিপক্ষ স্বাগতিক আয়ারল্যান্ড এবং ওয়েস্ট ইন্ডিজ। যেখানে প্রত্যেক দল একে অপরের বিপক্ষে দুটি করে ম্যাচ খেলবে। সেখান থেকে পয়েন্ট টেবিলে এগিয়ে থাকা দুটি দল খেলবে ফাইনাল। তারপর ৩০ মে ইংল্যান্ড-দক্ষিণ আফ্রিকার ম্যাচ দিয়ে শুরু হবে বিশ্বকাপ। তার আগে দুটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলার সুযোগ পাবে টাইগাররা। ২ জুন দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে শুরু হবে টাইগারদের বিশ্বকাপ মিশন।

 

"