হতাশায় কৃষক

নেত্রকোনার হাওরের ধানে ‘কোল্ড ইনজুরি’

প্রকাশ : ০৯ এপ্রিল ২০১৯, ০০:০০

নেত্রকোনা প্রতিনিধি

অগ্রিম ধানের চারা রোপণ করায় কোল্ড ইনজুরিতে আক্রান্ত হয়েছে নেত্রকোনার হাওরের বোরো ধান। এতে ধানে চিটা দেখা দিয়েছে। একমাত্র বোরো ধানে চিটা দেখা দেওয়ায় হতাশ হয়ে পড়েছেন হাওর পারের সাধারণ কৃষকরা। কৃষি বিভাগ ধারণা করছে, কোল্ড ইনজুরির কারণে ফসলে চিটা দেখা দিয়েছে। তবে মূলত কী কারণে হয়েছে তা জানতে গবেষণার জন্য ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের কাছে চিঠি দেওয়া হয়েছে।

শস্য ভান্ডার হিসেবে খ্যাত হাওর জেলা নেত্রকোনা। একমাত্র বোরো ফসলের ওপর নির্ভরশীল এ জেলার হাওর পারের মানুষ। আর এই ফসল ফলাতে ধার-দেনা করে টাকা খরচ করে থাকে অনেকেই। বর্তমানে অগ্রিম রোপণ ও ঠা-ার কারণে হাওরে বোরো ধানে চিটা দেখা দিয়েছে। মোহনগঞ্জের সবচেয়ে বড় ডিঙ্গাপুতা হাওরে প্রায় ৬০ হেক্টর জমিতে এই রোগ দেখা দিয়েছে। শুধু তাই নয়, মদন উপজেলায় ও খালিয়াজুরীর ধানেও এই রোগের প্রাদুর্ভাব।

একমাত্র বোরো ফসল ক্ষতির আশঙ্কায় হতাশায় দিন কাটাচ্ছেন হাওর পারের সাধারণ কৃষকরা। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে ধানের চারা অগ্রিম রোপণ করায় এবং ধান বের হওয়ার আগে তাপমাত্রা কমে যাওয়ায় হচ্ছে এই চিটা রোগ। খুব শিগগিরই রোগের কারণ উদ্ঘাটন করে কৃষকদের সহযোগিতা করবেন সরকার, এমনটিই প্রত্যাশা নেত্রকোনাবাসীর।

"