ওসমানীতে রোগীর স্বজনদের মারধর করলেন আনসার সদস্যরা

প্রকাশ : ১৩ মার্চ ২০১৯, ০০:০০

সিলেট প্রতিনিধি

সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রোগীর স্বজনদের মারধর করেছেন কর্মরত আনসার সদস্যরা। এ সময় তারা জনসম্মুখে রোগীর স্বজনদের কান ধরিয়ে উঠবস করান। এমনকি তাদের বিরুদ্ধে কর্তৃপক্ষের কাছে যাতে কোনো ধরনের অভিযোগ না করেন সেজন্য তাদের কাছ থেকে সাদা কাগজে স্বাক্ষর নেন তারা। গত সোমবার মধ্যরাতে হাসপাতালের অভ্যর্থনা কক্ষে এ ঘটনা ঘটে। আহতরা হলেনÑ সুনামগঞ্জের ছাতক উপজেলার সওতরপাড়ার কালিপুরের সাঞ্জব আলীর ছেলে ইসমাইল আলী (৩৫) ও একই এলাকার দশারত বিশ্বাসের ছেলে জ্যোতিন্দ্র বিশ্বাস (২৫)।

প্রত্যক্ষদর্শী ও রোগীর স্বজনরা জানান, গ্রামে মারধরের ঘটনায় আহতদের নিয়ে হাতপাতালের অভ্যর্থনা কক্ষে আসেন ইসমাইল আলী ও জ্যোতিন্দ্র বিশ্বাসসহ রোগীর কয়েকজন স্বজন। ভর্তিচলাকালীন হুলস্থুল শুরু হলে কর্মরত আনসার সদস্য রূপক ও মেহেদী পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে তাদের লাঠিপেটা করেন। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসেন আনসারের পিসি (প্লাটুন কমান্ডার) নাছির উদ্দিন। তিনিও ইসমাইল ও জ্যোতিন্দ্রকে কান ধরিয়ে উঠবস করানোর পর হাসপাতালের পুলিশ ক্যাম্পে নিয়ে সাদা কাগজে সই রেখে ছেড়ে দেন। এ ঘটনায় হাসপাতালে আসা রোগীর স্বজনেরাও ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।

আহত ইসমাইল আলী জানান, এলাকায় তাদের দুই পক্ষের মধ্যে মারধরের ঘটনা ঘটে। আহতদের ভর্তিতে করাতে গেলে অন্য লোকজন হট্টগোল শুরু করলে তাদের ওপর চড়াও হন আনসার সদস্যরা। এ ঘটনার বিচার দাবি করেছেন তিনি। এ ব্যাপারে জানতে চাইলে আনসারের পিসি নাছির উদ্দিন কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি।

 

"