এইসএসসিতে সাফল্য

সব বাধা পেরিয়ে প্রতিবন্ধী আরিফ

প্রকাশ : ১৮ জুলাই ২০১৯, ০০:০০

আকবর হোসেন, মনোহরগঞ্জ (কুমিল্লা)

দুই পা না থাকার মতো করুন-কঠিন জীবন সত্বেও এইচএসসি পাশ করেছে প্রতিবন্ধী আরিফ হোসেন। সদ্য প্রকাশিত পরীক্ষার ফল থেকে তিনি ৩.২৫ পেয়েছেন বলে দেখা যায়। আরিফ জেলার লাকসাম উপজেলার গোবিন্দপুর ইউনিয়নের গাজীরপাড় গ্রামের দিনমজুর কাজী আবুল বাশারের ছেলে। খেয়ে না-খেয়ে কষ্ট করে তার দিনমজুর পিতা ছেলের পড়ালেখার খরচ চালিয়ে এসেছেন।

এর আগে ২০১৭ সালে এসএসসি পরীক্ষার ফল প্রকাশের পর প্রতিদিনের সংবাদসহ জাতীয় ও স্থানীয় গণমাধ্যমে তাকে নিয়ে সংবাদ প্রকাশ করা হয়েছে। পরবর্তীতে তাকে কলেজে ভর্তি করার দায়িত্ব নেন প্রতিদিনের সংবাদের মনোহরগঞ্জ প্রতিনিধি ও পঞ্চগ্রাম স্কুল এন্ড কলেজের ইংরেজি বিভাগের প্রভাষক মো. আকবর হোসেন। চলতি বছরের মনোহরগঞ্জ সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগের ছাত্র আরিফ এইচএসসি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেন। এতে জিপিএ ৩.২৫ অর্জন করেছেন। এর আগে ২০১৭ সালে উপজেলার মৈশাতুয়া ইউনিয়নের আশিরপাড় উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এসএসসি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে। সে সময় জিপিএ ৩ অর্জন করেন আরিফ।

আরিফের কলেজের অধ্যক্ষ মো. আবদুল মতিন জানান, মানুষের ইচ্ছা শক্তি থাকলে কোন প্রতিবন্ধকতা তার উন্নতির শিখরে উঠতে বাঁধা হয়ে দাঁড়ায় না। আরিফ হলো এর জলন্ত প্রমাণ। অত্যন্ত গরীব পরিবারের সন্তান হওয়অ তাকে আমরা অনেক সহযোগিতা করেছি। আমি আরিফের মতো প্রতিবন্ধীসহ সকল প্রতিবন্ধীদের উত্তরোত্তর সাফল্য কামনা করি।

এসময় তিনি উপজেলার শিক্ষার গুণগত মানোন্নয়নে স্থানীয় এমপি ও এলজিইডি মন্ত্রী মোঃ তাজুল ইসলামের অব্যাহত সহযোগিতা জন্য কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। তিনি বলেন, প্রতিবন্ধীদের উন্নয়নের জন্য বিশ্বব্যাপী কাজ করে যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার সুযোগ্যা কন্যা সায়মা ওয়াজেদ পুতুল। আরিফের সাফল্যে তার কথা শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করি। এছাড়া মনোহরগঞ্জ ইউএনও এবং উপজেলা প্রতিবন্ধী অফিসার আরিফকে অনেক সহযোগিতা করেছেন বলে জানান। প্রতিবন্ধী আরিফ জানান, আমার দুটি পা নেই। চলাফেরা করতে আমার অনেক কষ্ট হয়। আমি লেখাপড়া চালিয়ে যেতে চাই। সমাজের বিত্তবানদের কাছে আমি সহযোগিতা চাই। এছাড়াও সে সকলের নিকট দোয়া কামনা করেছে।

"