মিঠাপুকুরে মহাসড়ক বেহাল

প্রকাশ : ১২ জুলাই ২০১৯, ০০:০০

মিঠাপুকুর (রংপুর) প্রতিনিধি

রংপুরের মিঠাপুকুরে রংপুর-ঢাকা মহাসড়ক সংস্কার করার পরেই অসংখ্য গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। ঝুঁকি নিয়ে চলাচল করছে যানবাহন। প্রায় ঘটছে দুর্ঘটনা। সড়কের এ বেহাল দশার জন্য রংপুর সড়ক বিভাগকে দায়ী করছেন এলাকাবাসী।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, রংপুর-ঢাকা মহাসড়কের মিঠাপুুকুর উপজেলা সদর এলাকার মাধ্যমিক শিক্ষক সমিতি থেকে উপজেলা পরিষদ গেট পর্যন্ত অংশটিতে কোন রকম গর্ত বা খানাখন্দ ছিল না। ১৫ দিন আগে রংপুর সড়ক বিভাগের লোকজন সড়কটি মেরামতের নামে খনন করে। খননের পর ব্যবহৃত বিটুমিনযুক্ত পাথরগুলোই সড়কে বিছিয়ে দিয়ে চলে যায়। ১/২ দিন পরেই মহাসড়কের ওই অংশটিতে গর্ত বা খানাখন্দের সৃষ্টি হয়। এতে প্রায় প্রতিদিনই ঘটছে ছোট বড় দুর্ঘটনা। ইতোমধ্যে মোটর সাইকেল ও ইজিবাইক উল্টে অর্ধ শতাধিক যাত্রী ও মোটর সাইকেল আরোহী আহত হয়েছেন। মহাসড়কের এই বেহাল দশার বিষয়টি গত সোমবার রংপুরের জেলা প্রশাসক আসিব আহসানকে অবহিত করা হয়েছে।

মোটর শ্রমিক ইউনিয়ন উপজেলা শাখার সম্পাদক বাবলু মিয়া বলেন, সড়ক খারাপ হলে মেরামত করবে এটাই স্বাভাবিক। কিন্তু ভাল সড়ক মেরামতের নামে চলাচলের অনুপযোগী করে রাখার ঘটনায় বিস্মিত হয়েছি।

সদর ইউপি চেয়ারম্যান সাইদুর রহমান তালুকদার বলেন, ভাল সড়ক খারাপ করে রাখার বিষয়টি রহস্যজনক। তিনি তদন্ত পূর্বক সংশ্লিষ্টদের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানান। মহাসড়কের পাশে অবস্থিত দোকানের মালিক আঃ বাতেন, মোতাহার হোসেন, আরিফুল ইসলামসহ অনেকেই বলেন, জীবনে এই প্রথম মেরামতের নামে ভাল সড়ক খারাপ করা দেখলাম।

 

"