নোংরা পরিবেশে খাদ্যদ্রব্য তৈরি

প্রকাশ : ২৩ মে ২০১৯, ০০:০০

গোবিন্দগঞ্জ (গাইবান্ধা) প্রতিনিধি

গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে অস্বাস্থ্যকর নোংরা পরিবেশে তৈরি হচ্ছে মানবদেহের জন্য ক্ষতিকারক রংমিশ্রিত লাচ্চা সেমাই ও বিভিন্ন ইফতারসামগ্রী।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, গোবিন্দগঞ্জের মালঞ্চা গ্রামের আব্দুর রাজ্জাক তার বাড়িতে গোয়াল ঘর সংলগ্ন ঘরে গড়ে তুলেছেন কারখানা। সেখানে অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে তৈরি করা হচ্ছে লাচ্ছা সেমাই। সেমাইয়ে মিশানো হচ্ছে মানবদেহের জন্য ক্ষতিকর রং। উপজেলার আরও ৫/৭টি পয়েন্টে অস্বাস্থ্যকর নোংরা পরিবেশে নি¤œমানের রং মিশ্রিত লাচ্চা সেমাই তৈরি করা হচ্ছে বলে জানা গেছে। আর এসব লাচ্চা সেমাই উপজেলার বিভিন্ন হাটবাজারে দেদারছে বিক্রি হচ্ছে। ভেজাল খাদ্যদ্রব্য পরিদর্শনে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এবং পৌরসভায় সেনেটারি ইন্সপেক্টর থাকলেও তাদের কোন তৎপরতা নেই বলে অভিযোগ স্থানীয়দের। অপরদিকে উপজেলার বিভিন্ন হোটেল রেস্তরাসহ ফুটপাথে বিক্রিত ইফতার সামগ্রীও তৈরি করা হচ্ছে ক্ষতিকর রং মিশিয়ে। এসব খাদ্য দ্রব্য খেয়ে নানা রোগে আক্রান্ত হচ্ছেন ভোক্তারা। এ বিষয়ে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক চিকিৎসক ডা. মজিদুল ইসলাম বলেন, ভেজাল ও রং মিশ্রিত খাবার খেলে পেটের পিড়াসহ ক্যান্সারের মতো জটিল রোগে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভবনা রয়েছে। এ বিষয়ে ভারপ্রাপ্ত ইউএনও নাজির হোসেন জানান, অভিযোগের ভিত্তিতে খুব শীঘ্রই অভিযান পরিচালনা করে ভেজাল খাদ্য দ্রব্য প্রস্তুত ও বিক্রি বন্ধে কার্যকর পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

 

"