মাদ্রাসার জমি নিয়ে বিরোধ

কালকিনিতে সংঘর্ষে পুলিশসহ আহত ১০, গ্রেফতার ৭

প্রকাশ : ১৮ মে ২০১৯, ০০:০০

কালকিনি (মাদারীপুর) প্রতিনিধি

মাদারীপুরের কালকিনিতে একটি মাদ্রাসার নির্মাণাধীর ভবনের জমি নিয়ে দু’পক্ষের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। সংঘর্ষে পুলিশসহ উভয় পক্ষের কমপক্ষে ১০জন আহত হয়। আহতদের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। এ ঘটনায় গতকাল শুক্রবার সকালে পুলিশ বাদী হয়ে থানায় মামলা করেন। পরে পুলিশ ৭ জনকে গ্রেফতার করে।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার সাহেবরামপুর এলাকার ক্রোকিরচর ইসলামিয়া মহিলা ফাজিল মাদরাসায় একটি সরকারি নতুন ভবন নির্মাণের কাজ শুরু হয়। ভবন নির্মাণাধিন জমির মালিকানা দাবি করেণ জয়নাল হওলাদার নামে এক ব্যক্তি। পরে তিনি ভবনের নির্মাণ কাজ বন্ধ করে দেন। এ বিষয়ে মাদ্রাসার অধ্যাক্ষ গোলাম মস্তফা পুলিশকে খবর দেন। খবর পেয়ে এসআই আল ইমরান ও কনস্টবল মো. জাহাঙ্গীর হোসেন ঘটনাস্থলে যান। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার দিকে জয়নাল ও তার লোকজন মিলে অধ্যক্ষ গোলাম মস্তফার উপর হামলা চালায়। পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনার চেষ্টা করলে হামলাকারীরা পুলিশের উপরও হামলা চালায়। এতে অধ্যক্ষ গোলাম মস্তফা, এসআই আল ইমরান, কনস্টবল জাহাঙ্গীর হোসেন, জবেদা বেগম, হালিমা, আবু বাক্কর, রহিমা বেগমসহ কমপক্ষে ১০জন আহত হয়। এ হামলার ঘটনায় ৭জন আসামিকে গ্রেফতার করে পুলিশ। গ্রেফতারকৃতরা হলেন- রহিমা বেগম, সারমিন আক্তার, মনিকা আক্তার, মরিয়ম আক্তার, সাহারা আক্তার, জহুরা আক্তার ও রাসেল বেপারী।

অধ্যক্ষ গোলাম মস্তফা বলেন, আমি মাদরাসার জায়গায় নতুন ভবন নির্মাণ কাজ শুরু করি। এতে বাঁধা দেন জয়নাল। অভিযুক্ত জয়নাল বলেন, আমার জায়গায় জোর পূর্বকভাবে মাদরাসার ভবনের কাজ করছেন অধ্যক্ষ মস্তফা। ওসি মোফাজ্জেল হোসেন বলেন, পুলিশের উপর হামলার ঘটনায় মামলা হয়েছে।

 

"