জলাবদ্ধতা থেকে রক্ষা পেতে স্বেচ্ছাশ্রমে রাস্তা

প্রকাশ : ১৮ মে ২০১৯, ০০:০০

নিকলী (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি

জলাবদ্ধতা থেকে রক্ষা পেতে স্বেচ্ছাশ্রমেই রাস্তা তৈরি করেছেন কিশোরগঞ্জের নিকলী সদরের ওয়ার্ডবাসী। গ্রামবাসী ও যুবসমাজের উদ্যোগে সদরের ৪নং ওয়ার্ডের পুকুর পাড় গ্রামের রাস্তা নির্মাণ করেন তারা। উপজেলা সহকারী ভূমি কমিশনারের (এসি ল্যান্ড) কার্যালয় ঘেঁষা রাস্তাটি মূল সড়কের সঙ্গে সংযুক্ত। এ রাস্তা দিয়ে পশ্চিম নিকলীর ১১টি গ্রামের ১০ হাজারের অধিক স্থানীয়সহ স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীদের যাতায়াতের একমাত্র পথ।

১৯৯৭-৯৮ অর্থবছরে প্রয়াত রাষ্ট্রপতি মো. জিল্লুর রহমানে বিশেষ অনুদানে রাস্তার প্রতিরক্ষা দেওয়াল (প্যালাসাইডিং) করে দেন। ২০০৪ সালে বন্যায় রাস্তার পাশের প্রায় শতবর্ষী কামার তালাব-পুকুরটি বিলিন হয়ে যায়। পরে রাস্তা পুনরুদ্ধারে পুকুর মালিক ও স্থানীয়দের আদালতে দীর্ঘদিন ধরে মামলা চলে। আদালতে এর সুরাহা না হলেও ২০১৮ সালের মাঝামাঝি সময়ে রাস্তার প্রতিরক্ষা দেওয়াল বালু চাপা দিয়ে ভরাটের মাধ্যমে শ্রেণি পরিবর্তন করেন পুকুর মালিকরা।

স্থানীরা জানান, পুকুরটি ভরাটের পূর্বে বৃষ্টির পানি কামার তালাব-পুকুরেই নিঃসৃত হতো। কিন্তু ভরাটের ফলে পয়ঃনিষ্কাশন বন্ধ হয়ে যাওয়ায় উপজেলা ভূমি অফিস, কৃষি ব্যাংক, ডাকঘর, ইউনিয়ন ভূমি অফিসের সামনের রাস্তাটি সামান্য বৃষ্টিতেই হাঁটু পর্যন্ত পানি জমে যেত।

এরই পরিপ্রেক্ষিতে পুকুর পাড় গ্রামের যুবকদের উদ্যোগে ও স্থানীয়দের সহযোগিতায় পুকুরের দক্ষিণ পাশের নতুন রাস্তাটি স্বেচ্ছাশ্রমে মাটিভরাট করেন তারা। তবে পুকুরের পশ্চিম অংশে পাকা রাস্তাটি এখনো নিমজ্জিত।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোছাম্মৎ শাহীনা আক্তার জানান, জলাবদ্ধতার বিষয়টি আমার জানা থাকলেও স্বেচ্ছাশ্রমে রাস্তা নির্মাণের বিষয়টি আমার জানা নেই। তবে আমি খোঁজ-খবর নিয়ে দেখব।

 

"