ফেনী যেন আবর্জনার শহর

প্রকাশ : ১১ মে ২০১৯, ০০:০০

শাহাদাত হোসাইন, ফেনী

ফেনী শহরের গুরুত্বপূর্ণ সড়কগুলোর যত্রতত্র ময়লা ফেলা হচ্ছে আবর্জনা। ফলে এই রমজানেও একদিকে ময়লা আবর্জনার দুর্গন্ধে শহরে চলাচল দুঃসাধ্য হয়ে পড়েছে, অন্যদিকে মারাত্মকভাবে দূষিত হচ্ছে পরিবেশ। বছর জুড়ে চলে বর্জ্য অব্যবস্থাপনার অভিযোগ নাগরীকদের। তবে মেয়র বলছেন, এগুলো সাময়িক সমস্যা।

পথচারী ও স্থানীয় ব্যবসায়ীরা জানান, শহরের মূল সড়কগুলোতে বছরের পর বছর ধরে ময়লা আবর্জনা ফেলা হচ্ছে। বিষয়টি যেন দেখার কেউ নেই। ফেনীতে থাকাকালে শহরের শহীদ শহীদুল্লা কায়সার সড়ক দিয়ে নিয়মিত রামপুরের বাড়িতে যাতায়াত করেন মেয়র হাজী আলাউদ্দীন। অথচ বাণিজ্যিকভাবে গুরুত্বপূর্ণ এ সড়কেই ময়লা আবর্জনার স্তুপ সবচে বেশি।

তারা জানান, ২০১১ সালে নিজাম উদ্দীন হাজারী ফেনী পৌরসভার মেয়র নির্বাচিত হলে শহরের পুরনো ডাস্টবিনগুলো ভেঙ্গে নতুন ডাস্টবিন তৈরির উদ্যোগ নেন। এর কিছুদিন পর তিনি এমপি নির্বাচিত হয়ে গেলে এ পরিকল্পনা আর আলোর মুখ দেখেনি। সরেজমিনে দেখা যায়, বর্তমানে শহরের ময়লা আবর্জনা ফেলার জন্য কোন ডাস্টবিন নেই। কোন কোন স্থানে ড্রেনের উপর দুই পাশে ছোট ওয়াল তৈরি করে ডাস্টবিন হিসেবে ব্যবহার করা হচ্ছে। এসব ডাস্টবিনে ছোট ছোট ভ্যানে করে বিভিন্ন ওয়ার্ড থেকে ময়লা এনে জড়ো করে এলাকাভিত্তিক ভাড়া করা সুইপাররা। কিন্তু সকাল গড়িয়ে দুপুর আর সন্ধ্যা গড়িয়ে রাত হলেও এসব আবর্জনা পরিস্কার করার কোন লোক চোখে পড়ে না।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, পৌরসভার নিয়োগকৃত সুইপাররা তাদের খেয়ালখুশি মতো কাজ করেন। এদের নজরদারি করার মতো কেউ নেই। তাই তারা মন চাইলে আবর্জনা পরিস্কার করে, আবার কখনো কয়েক দিন এভাবে ফেলে রাখে।

পৌরসভার কয়েকজন সুইপার এ প্রসঙ্গে জানান, আবর্জনা পরিস্কার করার বিনিময়ে তাদের যে টাকা দেওয়া হয় তাতে তাদের পোষায় না। আবার তাদের ব্যাপারে কেউ খোঁজখবরও নেয় না। ফেনী পৌরসভার বিরুদ্ধে সাধারণ নাগরিকদের হাজারো অভিযোগের মধ্যে বর্তমানে বিড়ম্বনার অন্যতম ইস্যু হলো আবর্জনা।

এদিকে বর্জ্য অব্যবস্থাপনায় ক্ষুব্ধ নাগরিকরা। শহরের ডাক্তারপাড়ার বাসিন্দা শাহেদ, মামুন ও কলেজছাত্রী সীমা জানান, শহরের শহীদুল্লা কায়সার সড়কের পাউবো, এসি মার্কেট, চক্ষু হাসপাতালসহ বিভিন্ন জায়গায় খোলা ডাস্টবিনে তাদের যাতায়াতে সীমাহীন দুর্গন্ধে নাম চেপে ধরতে হয়। শহরের বাণিজ্যিক সড়কে গুরুত্বপূর্ণ হাসপাতাল, ক্লিনিক ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের সামনে আবর্জনার স্তুপ পরিবেশ বিষিয়ে তুলেছে। এছাড়া শহরের মুক্ত বাজার, গোলাপ মিয়া মার্কেট ও একাডেমী সড়কে আবর্জনার স্তুপ থেকে নির্গত দুর্গন্ধে বিপাকে রয়েছে পথচারীরা। এর ফলে পৌর এলাকার পরিবেশ দূষিত হয়ে পড়েছে।

এ বিষয়ে জানতে ফেনী পৌর মেয়র হাজী আলাউদ্দীনের সঙ্গে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে জানান, ‘এগুলো সাময়িক সমস্যা। অচিরেই তা সমাধান করার পাশাপাশি স্থায়ী ডাস্টবিন স্থাপন করা হবে।’

"