চায়ের দোকানে বসা নিয়ে সংঘর্ষ, আহত ১৫

মহম্মদপুরে আধিপত্য বিস্তার কেন্দ্র করে আ.লীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ

প্রকাশ : ০৯ এপ্রিল ২০১৯, ০০:০০

মহম্মদপুর (মাগুরা) প্রতিনিধি

মাগুরার মহম্মদপুর উপজেলার রাজাপুর ইউনিয়নের গঙ্গানন্দপুর বাজারে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগের দুইপক্ষের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। গত রোববার রাতে চায়ের দোকানে বসা নিয়ে এ সংঘর্ষের শুরু হয়। তিন ঘন্টাব্যাপি এ সংঘর্ষে উভয়পক্ষের ১৫ জন আহত হয়। এতে আ.লীগের দুটি অফিসসহ ১৮টি দোকান ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় ঘটনাস্থল থেকে সাতজনকে আটক করেছে পুলিশ।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, রাজাপুর ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ড আ.লীগের সভাপতি আবুল কাশেম ও রাজাপুর ইউনিয়ন পরিষদের ৮নং ওয়ার্ড সদস্য আব্দুল হালিম মোল্যার মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দ্বন্দ্ব চলে আসছিল। ঘটনার দিন রাত ৮টার দিকে গঙ্গানন্দপুর বাজারে চায়ের দোকানে বসা নিয়ে কাসেম সমর্থক বাকির সঙ্গে হালিম মোল্যার সমর্থক শফিকের কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। ঘটনাটি এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে উভয়পক্ষের লোকজন দেশীয় অস্ত্রে সজ্জিত হয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ রাসেল হাসান (৩৫), মোস্তাক হোসেন (৩০), ইলিয়াস মন্ডল (৪৫), ওহিদুজ্জামান (৩৮), মুসা নূর (২০), বিপুল শিকদার (৩৫) ও তৌহিদুল ইসলামকে (৩৫) আটক করে।

সংঘর্ষে গুরুতর আহত ওহিদুর রহমান (১৫), ইলিয়াস মোল্যা (৪৫), মোসানুর (১৮), বিপুল শিকদার (৩৫), রাসেল হোসেন (৩৪), মোস্তাক হোসেন (৩০), ওহিদুজ্জামান (৩৮) ও তৌহিদুল ইসলাম (৩৫) মহম্মদপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা নিয়েছে। বাকিরা প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন।

মহম্মদপুর থানার এসআই (তদন্ত) লিটন সরকার বলেন, পূণরায় সংঘর্ষ এড়াতে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

"