ইউপি চেয়ারম্যানের পা ভেঙে দিলেন তিন সদস্য

রাজশাহীর গোদাগাড়ী উপজেলার মোহনপুর ইউনিয়ন

প্রকাশ : ০৯ জানুয়ারি ২০১৯, ০০:০০

গোদাগাড়ী (রাজশাহী) প্রতিনিধি

রাজশাহীর গোদাগাড়ীর মোহনপুর ইউপির তিন সদস্যের বিরুদ্ধে পিটিয়ে চেয়ারম্যান গোলাম মোস্তফার (৫৮) পা ভেঙে দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। পদত্যাগের দিন গত সোমবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে উপজেলার হাট গোবিনপুর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পরে আহত অবস্থায় চেয়ারম্যান মোস্তফাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। অভিযোগ আছে, ভিন্ন দলের রাজনৈতিক প্রতিপক্ষ হওয়ায় এই আক্রমণের ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, মোস্তফা উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ছিলেন। ব্যক্তিগত কারণ দেখিয়ে সোমবারই তিনি পদত্যাগ করেন। এর কয়েক ঘণ্টা পরেই তার ওপর হামলার ঘটনা ঘটল। তবে হামলাকারী ইউপি সদস্যরা সবাই আ.লীগ করেন।

চেয়ারম্যান গোলাম মোস্তফার ছেলে শফিক উদ্দিন মানিক জানান, সন্ধ্যার পর গোলাম মোস্তফা ইউপি কার্যালয় থেকে বাড়ি ফিরছিলেন। পথে গোবিনপুর এলাকায় ইউপির ৩, ৪ এবং ৭নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য যথাক্রমে এলাম উদ্দিন, হাসান ইমাম বাবু ও আবু বক্কর আবুর নেতৃত্বে ৮-১০ জন তার ওপর হামলা চালান। হামলাকারীরা লোহার রড এবং বাঁশের লাঠি দিয়ে চেয়ারম্যান গোলাম মোস্তফাকে বেধড়ক পেটান। এতে তার বাম পা ভেঙে গেছে। এ নিয়ে তারা মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলেও জানান শফিক উদ্দিন মানিক।

হামলার বিষয়ে জানতে চাইলে ৪নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য হাসান ইমাম বাবু বলেন, চেয়ারম্যান বিএনপি করেন। তাই যেসব সদস্য আ.লীগ করেন তাদের নানাভাবে তিনি বঞ্চিত করেন। জমে থাকা ক্ষোভ থেকে তার ওপর হামলার ঘটনা ঘটেছে। তবে হামলার সময় তিনি ছিলেন না বলে দাবি করেন।

গোদগাড়ী মডেল থানার ওসি জাহাঙ্গীর আলম জানান, অভিযোগ পেলে এ বিষয়ে আইনগত পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।

"