কোটালীপাড়ায় জমজমাট কার্তিক প্রতিমার হাট

প্রকাশ : ১৭ নভেম্বর ২০১৮, ০০:০০

কোটালীপাড়া (গোপালগঞ্জ) প্রতিনিধি
ama ami

আজ থেকে (শনিবার) সারাদেশে শুরু হবে কার্তিক পূজা। পূজা উপলক্ষে গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়া উপজেলার অন্তত ১৫-২০টি স্থানে কার্তিক প্রতিমার হাট জমে উঠেছে। প্রায় এক সপ্তাহ ধরে উপজেলার কালিগঞ্জ, রামনগর, পীড়ারবাড়ী, কান্দি, ধারাবাশাইল, শুয়াগ্রাম, চৌধূরীরহাট, ঘাঘর, কলাবাড়ি, রামশীল, জহরেরকান্দি, ওয়াপদারহাট, নৈয়ারবাড়ি, রাধাগঞ্জ, ভাঙ্গারহাট, মনোহর মার্কেট, পশ্চিমপাড়, রাজাপুর, কুশলা, লাখিরপাড় ও হিরণ বাজারে প্রতিমার হাট বসছে। এসব হাট থেকে সানাতন ধর্মাবলম্বীরা কার্তিক প্রতিমা কিনে নিয়ে যাচ্ছেন।

হিরণ গ্রামের মৃৎ শিল্পী অমল পাল বলেন, ‘উপজেলার কমপক্ষে ১৫-২০ টি স্থানে শত বছর ধরে কার্তিক প্রতিমার হাট বসে আসছে। আমাদের পূর্ব পুরুষেরা এসব হাটে প্রতিমা বিক্রি করেছেন। আমরাও প্রতিমা তৈরী করে এসব হাটে বিক্রি করি। এখানে প্রতিটি হাটে আমাদের নির্মিত প্রতিমা চারশত থেকে ১হাজার টাকা করে বিক্রি হয়। এ অঞ্চলের সনাতন ধর্মাবলম্বীদের ঘরে ঘরে এ পূজা অনুষ্ঠিত হয়। এ কারণেই প্রতিটি হাটেই প্রতিমার ব্যাপক চাহিদা রয়েছে।’ উপজেলার ডুমুরিয়া গ্রামের প্রতিমা ক্রেতা মিলন বৈরাগী বলেন, ‘আমরা সনাতন ধর্মাবলম্বীরা ঘরে ঘরে কার্তিক পূজা করি। পুত্র সন্তানের মঙ্গল কামনায় আমরা এই পূজা করে থাকি। প্রতি বছরই আমরা ঘাঘর হাট থেকে প্রতিমা ক্রয় করি। এই হাটে প্রচুর প্রতিমা বিক্রি হয়।’ উপজেলা চেয়ারম্যান মুজিবুর রহমান হাওলাদার বলেন, ‘কোটালীপাড়া প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নিজ নির্বাচনী এলাকা। এখানে সব ধর্মের মানুষ শান্তিপূর্নভাবে সহ অবস্থান করছেন। উপজেলার সনাতন ধর্মাবলম্বীদের ঘরে ঘরে কার্তিক পূজা অনুষ্ঠিত হয়। এ পূজাকে কেন্দ্র করে ৫ দিন আগে থেকে উপজেলার ২০টি স্থানে প্রতিমারহাট বসে। সেখানে উৎসবমুখর পরিবেশে ক্রেতা-বিক্রেতারা প্রতিমা কেনাকাটা করে। এ উপজেলার ঐতিহ্যবাহী প্রতিমার হাটগুলো আরো শত শত বছর টিকে থাকবে বলে আমি বিশ্বাস করি।’

 

"