বাউফলে বিদ্যালয় ভবনে ধস শিক্ষার্থীদের মধ্যে আতঙ্ক

প্রকাশ : ০৬ নভেম্বর ২০১৮, ০০:০০

বাউফল (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি

পটুয়াখালীর বাউফল উপজেলার ৮৪নং কালাইয়া বোর্ড সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পুরনো একটি ভবনের শ্রেণিকক্ষের সামনের অংশ ধসে পড়েছে। গত রোববার ক্লাস চলাকালীন সময় এ ঘটনা ঘটে। এ সময় বিকট শব্দে শিক্ষার্থীদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। ওই দিনই সংশ্লিষ্ট দফতর ভবনটি পরিত্যক্ত ঘোষণা করলে বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের পাঠদান ব্যাহত হচ্ছে।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, ১৮৯৪ সালে বিদ্যালয়টি প্রতিষ্ঠা হলে বিদ্যালয়ের পাশেই ১৯৭২ সালে সরকার একটি সাইক্লোন শেল্টার নির্মাণ করেন। এরপর থেকে বিদ্যালয়ের শ্রেণিকক্ষ ওই ভবনেই স্থানান্তর করা হয়। কয়েক যুগের পুরনো ভবনটি বর্তমানে বেহাল হয়ে পড়েছে। ভবনের ১৭টি পিলারের প্রায় সবগুলোর বিভিন্ন অংশে ভেঙে রড বের হয়ে গেছে। ভবনের বিভিন্ন কক্ষে ফাটল দেখা দিয়েছে। শ্রেণিকক্ষের অভাবে প্রাণের ঝুঁকি নিয়ে ওই ঝুঁকিপূর্ণ ভবনে পাঠদান চলে আসছিল।

বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক লাইজু বেগম বলেন, গত রোববার দুপুর ১টার দিকে ভবনের তৃতীয় তলার দুই কক্ষে তৃতীয় ও চতুর্থ শ্রেণির পাঠদান চলছিল। এ সময় ওই তলার সামনের একটি বড় অংশ ধসে পড়ে। ধসের বিকট শব্দে শিক্ষার্থীরা ভয়ে চিৎকার দিলে কেউ কেউ জ্ঞান হারিয়ে ফেলে। এ সময় বিদ্যালয়ের শিক্ষক ও স্থানীয় অভিভাবকরা ছুটে আসেন।

প্রধান শিক্ষক মো. ইকবাল কবীর বলেন, ভবনটি পরিত্যক্ত ঘোষণা করা ও একটি নতুন ভবনের জন্য সংশ্লিষ্ট দফতরে আবেদন পাঠানো হয়েছে। নতুন একটি ভবন অত্যাবশ্যক হয়ে পড়েছে। এ ঘটনায় গত দুই দিনে শিক্ষার্থীদের উপস্থিতি কমে গেছে বলে জানান তিনি।

বাউফল উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. রিয়াজুল হক বলেন, শিক্ষার্থীদের উপস্থিতি নিশ্চিত করার জন্য ব্যবস্থা নেওয়া হবে। বিদ্যালয়ের জন্য নতুন একটি ভবন চেয়ে খুব শিগগিরই সংশ্লিষ্ট দফতরে চাহিদাপত্র প্রেরণ করা হবে।

 

"