উল্লাপাড়ায় যাত্রীদের দুর্ভোগ

মহাসড়কে অবৈধ তিন চাকার যান চলাচল বন্ধ

প্রকাশ : ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০০

উল্লাপাড়া (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি
ama ami

সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়া অঞ্চলে মহাসড়কে আগের চিত্র পাল্টে গেছে। মহাসড়কে নিষিদ্ধ তিন চাকার বাহনগুলোর চলাচল হয়েছে বন্ধ। লোকাল সার্ভিসের বাসের সংখ্যা কমে গেছে। এখন মহাসড়কে বাহন কমের কারণে কম দুরত্বের গন্তব্যের যাত্রীদের বেশ হয়রানি আর দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। সুযোগ পেলেই বেশি ভাড়া আদায়ের অভিযোগ পাওয়া যায়।

উপজেলার হাটিকুমরুল হাইওয়ে পুলিশের তৎপরতা ও নজরদারি থাকায় মহাসড়কে চলাচল নিষিদ্ধ অটোরিকশা, সিএনজি, লেগুনাসহ অন্যান্য অবৈধ বাহন চলছে না। ঈদের দিন তিনেক আগে থেকেই সিরাজগঞ্জ রোড গোলচত্বর হয়ে বগুড়া-নগরবাড়ি, ঢাকা-বগুড়া মহাসড়কে অবৈধ বাহনগুলোর চলাচল বন্ধে হাইওয়ে পুলিশের সার্বক্ষণিক তৎপরতা ও নজরদারি চলছে।

এ তৎপরতার মুখে বগুড়া-নগরবাড়ি ও সিরাজগঞ্জ-পাবনা মহাসড়কে ফিটনেস সার্টিফিকেট না থাকায় লোকাল সার্ভিসের বহু সংখ্যক বাস মহাসড়কে চালানো বন্ধ রেখেছে মালিক ও চালকেরা। কয়েক দিন আগে মহাসড়কের উল্লাপাড়ার বোয়ালিয়া থেকে বাঘাবাড়ি অংশে হাইওয়ে পুলিশের তৎপরতা ও নজরদারি বাড়ানো হয়েছে। এতে এ অংশে বন্ধ হয়ে গেছে, নিষিদ্ধ বাহনগুলোর চলাচল। এমন অবস্থায় সাধারণ যাত্রীদের দুর্ভোগ দেখা দিয়েছে। বিশেষ করে কম দুরত্বের গন্তব্যের যাতীদের বেশি হয়রানি ও দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। বোয়ালিয়া বাসস্ট্যান্ড, শ্রীকোলা, শ্যামলীপাড়া, আরএস ও বালসাবাড়ি বাসস্ট্যান্ডে দিনভর সাধারণ যাত্রীদের ভিড় জমে থাকছে। বাহন কম থাকায় এসব যাত্রীদের কাছ থেকে সুযোগ বুঝে প্রায়ই বাড়তি ভাড়া আদায় করা হচ্ছে বলে অভিযোগ পাওয়া যায়।

হাটিকুমরুল হাইওয়ে থানার ওসি আবদুল কাদির জিলানী জানান, মহাসড়কে কোনো অবস্থাতেই চলাচল নিষিদ্ধ বাহনগুলোকে আর চলতে দেওয়া হবে না। কোনো বাহনে যাত্রী ভাড়া বেশি না নেওয়ার বিষয়ে সতর্ক করে দেওয়া হচ্ছে বাসের চালক ও সুপারভাইজারদের।

"