বিদ্যুৎ পেতে মুক্তিযোদ্ধার ২ বছর অপেক্ষা

প্রকাশ : ১২ আগস্ট ২০১৮, ০০:০০

মাধবপুর (হবিগঞ্জ) প্রতিনিধি

হয়রানিমুক্তভাবে হবিগঞ্জের মাধবপুর উপজেলার প্রতিটি ঘরে শতভাগ বিদ্যুৎ সংযোগ দিতে বিশেষ কর্মসূচি নিয়েছে বিদ্যুৎ মন্ত্রণালয়। কিন্তু উপজেলার ধর্মঘর ইউনিয়নের মালঞ্চপুর গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা নজীর হোসেন দুই বছর ধরে পল্লী বিদ্যুৎ অফিসে ধরনা দিয়েও বিদ্যুৎ পাননি। সরকার অসহায় মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে ৯ লাখ টাকা ব্যয়ে একটি ঘর নির্মাণ করে দিলেও সেই ঘরে বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়া হয়নি। গত দুই বছর ধরে নোয়াপাড়া পল্লী বিদ্যুৎ আঞ্চলিক কার্যালয়ে চলাফেরা করে তিনি এখন ক্লান্ত হয়ে পড়েছেন।

মুক্তিযোদ্ধা নজীর হোসেন বলেন, অস্বচ্ছল মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে দুই বছর আগে একটি ঘর দিয়েছে সরকার। কিন্তু ঘর নির্মাণে নিম্নমানের উপকরণ ব্যবহার করা হয়েছে। বিদ্যুতের জন্য দুই বছর ধরে নোয়াপাড়া পল্লী বিদ্যুৎ অফিসে আসা যাওয়া করছি কিন্তু এখনো বিদ্যুৎ পাব কি না কোনো নিশ্চয়তা নেই। বৃদ্ধ বয়সে বিদ্যুৎ অফিসে যেতে যেতে আমি এখন ক্লান্ত হয়ে পড়েছি। মৃত্যুর আগে বিদ্যুৎ পাব কি না বলতে পারছি না।

এ ব্যাপারে নোয়াপাড়া পল্লী বিদ্যুৎ জোনাল অফিসের জুনিয়র প্রকৌশলী তপন কুমার দে বলেন, তার আবেদনটি কীভাবে আছে আমাদের জানা নেই। অবশ্যই তাকে বিদ্যুৎ দেওয়া হবে।

হবিগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির সভাপতি মিজানুর রহমান চকদার জানান, মুক্তিযোদ্ধা নজীর হোসেনের বাড়িতে দ্রুত বিদ্যুৎ সংযোগ দিতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

"