অবৈধ যান ও লাইসেন্স চেকিংয়ে সাতক্ষীরা জেলা জুড়ে অভিযান

প্রকাশ : ০৭ আগস্ট ২০১৮, ০০:০০

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি

নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীদের চলমান আন্দোলনের প্রেক্ষিতে সারাদেশে ট্রাফিক সপ্তাহ ঘোষণার পর সাতক্ষীরা জেলা জুড়ে চলছে পুলিশের অভিযান। অবৈধযান ও লাইসেন্স পরীক্ষা করছেন জেলার আট থানার পুলিশ কর্মকর্তাসহ জেলার ট্রাফিক পুলিশ কর্মকর্তারা। লাইসেন্স না থাকলেই মামলা আর গাড়ির কাগজপত্র না থাকলেই আটক হচ্ছে সেসব যানবাহন।

অভিযান চলছে সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত।

এদিকে, অভিযান শুরুর পর থেকে জেলা জুড়ে কাগজপত্র ও নম্বরবিহীন শতাধিক মোটরসাইকেল আটক হয়েছে। তাছাড়া হেলমেট, ড্রাইভিং লাইসেন্স না থাকায় মামলাও হয়েছে শতাধিক যানবাহন মালিকের নামে। অভিযান চলছে সাতক্ষীরা বিআরটিএ’র পক্ষ থেকেও।

সাতক্ষীরা শহরের আমতলা মোড়, খুলনা রোড মোড়, মেডিকেল কলেজ রোড, সাতক্ষীরা-যশোর রোডসহ জেলা সদর ছাড়াও উপজেলা সদরগুলোর গুরুত্বপূর্ণ সড়কে অবস্থান নিয়েছে পুলিশ।

এক শিক্ষার্থী বলেন, সড়কে বের হওয়ার পর বাসায় ফিরতে পারবো কিনা এই নিশ্চয়তা নেই। বাস, ট্রাক চালকরা এতো বেপরোয়া। তাছাড়া অবৈধ যানবাহনের ছড়াছড়ি। এর থেকে পরিত্রাণ চাই আমরা।

সাতক্ষীরা ট্রাফিক কর্মকর্তা মোমিন হোসেন বলেন, অবৈধযানের বিরুদ্ধে অভিযান ট্রাফিক পুলিশের একটি চলমান প্রক্রিয়া। শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের প্রেক্ষিতে সারাদেশে ট্রাফিক সপ্তাহ ঘোষণা করা হয়েছে। এরপর থেকে অবৈধযান ও যানবাহনের কাগজপত্র, ড্রাইভিং লাইসেন্স চেকিং আরও জোরদার করা হয়েছে।

তবে গত রোববার থেকে গতকাল সোমবার পর্যন্ত কতগুলো অবৈধযান আটক ও মালিকদের বিরুদ্ধে কতগুলো মামলা হয়েছে তার কোন তথ্য দিতে পারেননি এই ট্রাফিক কর্মকর্তা।

"