মধুপুরে কবরস্থান না থাকায় বিপাকে আশ্রয়ণ কেন্দ্রবাসী

প্রকাশ : ০৮ জুলাই ২০১৮, ০০:০০

মধুপুর (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি

টাঙ্গাইলের মধুপুর উপজেলার অরণখোলা ইউনিয়নের আশ্রায়ণ কেন্দ্রগুলোতে নির্দিষ্ট কোনো কবরস্থান না থাকায় দাফন নিয়ে বিপাকে পড়ছে আশ্রায়ণবাসীরা। বিশেষ করে গোবুদিয়া, জলছত্র, জাঙ্গালিয়া ও গাছাবাড়ী আশ্রায়ণ কেন্দ্রের ভূমিহীন ও অতিব দরিদ্র ধর্মপ্রাণ নিরিহ মুসলমান নাগরিকদের নির্দিষ্টি কোনো কবরস্থান না থাকায় চারটি আশ্রায়ণ কেন্দ্রের মৃত লাশ নিয়ে বিপাকে পড়তে হচ্ছে প্রতিনিয়ত। গোবুদিয়ার রিয়াজ উদ্দিন জানান, আশ্রায়ণবাসীরা হতদরিদ্র, তাদের বাহিরের কোনো কবরস্থানে দাফনের জন্য জায়গা ক্রয় করার মতো সামর্থ নেই বিধায় মৃত লাশ নিয়ে বিপাকে পড়তে হয়। বিষয়টি অত্যন্ত মানবিক ও ধর্মীয় সংবেদনশীল।

আশ্রয় কেন্দ্রবাসীরা জানান, কেন্দ্রে বসবাসকারীদের মরদেহের দাফন বা শেষকৃত্য করার মতো এতটুকু জায়গা না থাকায় বাধ্য হয়ে মৃত আত্মীয়-স্বজনদের অন্যের জমি ভিক্ষা চেয়ে মরদেহ দাফন করতে হচ্ছে।

এই এলাকায় হেদায়াতুল মাফেজুল ইসলামের কোনো সংগঠন না থাকায় বিভিন্ন দুর্ঘটনাকবলিত অজ্ঞাতনামা মৃত লাশগুলো নিয়ে বিপাকে পড়তে হচ্ছে তাদের। তারা আরো জানান, আশ্রায়ণ কেন্দ্রের সংলগ্ন বেরীবাইদ মৌজার ১নং খতিয়ান ২৯নং দাগে ছনকুড়া চনা থেকে দুই একর বৃক্ষহীন অনাবাদী চনা প্রকৃতির বনভূমি বন্দোবস্ত দেওয়ার জন্য আশ্রায়ণবাসীরা স্থানীয় সংসদ সদস্য আবদুর রাজ্জাক এমপির সুপারীশসহ বন ও পরিবেশ মন্ত্রণালয় নিকট আবেদন করেছেন তারা।

"