বিজিবি সদস্যকে মারধর ইউপি চেয়ারম্যান কারাগারে

প্রকাশ : ১১ জুন ২০১৮, ০০:০০

রাজীবপুর (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি

কুড়িগ্রামের রৌমারীতে ক্যাম্পে ঢুকে বিজিবি সদস্যকে মারধরের ঘটনায় দায়ের করা মামলায় সদর ইউপি চেয়ারম্যান শহীদুল ইসলাম সালুকে কারাগারে প্রেরণ করেছে আদালত। গতকাল রোববার রৌমারী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) জাহাঙ্গীল আলম এ কথা জানিয়েছেন। প্রত্যক্ষদর্শীদের সূত্রে জানা গেছে, গত শনিবার দুপুর ২টার দিকে রৌমার সদর বিজিবি ক্যাম্পে একটি নিলামে অংশ নিতে ভ্যাটের কাগজ চাওয়াকে কেন্দ্র করে উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি সোহেল রানার সঙ্গে বাকবিতন্ডায় জড়িয়ে পড়েন বিজিবির এক সদস্য। এ খবর পেয়ে ওই ছাত্রলীগ নেতার চাচা উপজেলা আ.লীগ নেতা ইউপি চেয়ারম্যান শহীদুল ইসলাম সালু ও তার লোকজনকে নিয়ে ক্যাম্পের ভেতর প্রবেশ করে এবং রেজাউল ইসলাম নামের এক বিজিবি সদস্যকে মারধর করে। এ সময় বিজিবির অন্য সদস্যরা এগিয়ে এসে আওয়ামী লীগের ওই নেতাকে আটক করেন। বিজিবি জামালপুর ব্যাটালিয়নের কমান্ডিং অফিসার (সিও) লে. কর্নেল মহিউদ্দিন আহমেদ সাংবাদিকদের জানান, ‘ইউপি চেয়ারম্যান, তার পুত্র ও ভাতিজাসহ ২০ জনের একটি দল আমাদের ক্যাম্পে ঢুকে এক জওয়ানকে মারধর করে এবং সরকারি কাজে বাধা সৃষ্টি করে। ক্যাম্পের ভেতর সন্ত্রাসী কর্মকা-ের অপরাধে রোববার চেয়ারম্যানসহ কয়েকজনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা করা হয়েছে। রৌমারী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) জাহাঙ্গীল আলম বলেন, ওই ঘটনায় বিজিবির পক্ষ থেকে দায়ের করা অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে মামলা হয়েছে। মামলায় ইউপি চেয়ারম্যান শহীদুল ইসলাম সালুকে আদালতের মাধ্যমে কুড়িগ্রাম জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

"