আখ চাষে রঘুনাথপুরের কৃষকদের আগ্রহ বাড়ছে

প্রকাশ : ০৯ জুন ২০১৮, ০০:০০

গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি

গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার রঘুনাথপুর ইউনিয়নের সিলনা গ্রামের কৃষকরা আখ চাষে ব্যাপক সফলতা পেয়েছেন। এ বছর সিলনা বাজারের পশ্চিম পাশে দুই বিঘা জমিতে আখ চাষ করেছেন মঞ্জু খাঁ। বাম্পার ফলনে লাভবান হওয়ার বিষয়ে তিনি আশাবাদী। পাইকাররা তার দুই বিঘা জমির আখ কেনার জন্য দুই লাখ টাকা দর বলছেন।

আখচাষি মঞ্জু খাঁ বলেন, ‘গত বছর আমি এক বিঘা জমিতে আখ চাষ করেছিলাম। দাম ভালো পাওয়ায় এবার ৬৪ শতাংশের দুই বিঘা জমিতে আখ চাষ করেছি। খুচরা বিক্রি করলে কমপক্ষে তিন লাখ টাকা আয় হবে।’ আখের মধ্যে ফাঁকা লাইনে উচ্ছে চাষ করে তিনি এক লাখ টাকা আয় করেছেন বলেও জানান। মঞ্জু খাঁর দেখাদেখি এখন অনেকেই আখ চাষে আগ্রহ দেখাচ্ছেন।

ওই গ্রামের আখচাষি রতন মন্ডল বলেন, আখ চাষে প্রাকৃতিক দুর্যোগের ভয় কম থাকে। অন্যান্য ফসলের চেয়ে আখ চাষে লাভ বেশি। রঘুনাথপুর দক্ষিণপাড়ার আখচাষি নিমাই চন্দ্র বিশ^াস বলেন, ‘তিন বছর ধরে এক বিঘা জমিতে বিভিন্ন জাতের আখ চাষ করে সংসার চালাচ্ছি। ছেলে-মেয়েদের লেখাপড়া করাচ্ছি। ভালোভাবেই জীবন চলছে। আখ চাষ আসলেই অধিক লাভজনক।’

গোপালগঞ্জ জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের উপপরিচালক সমীর কুমার গোস্বামী বলেন, গোপালগঞ্জের মাটি আখ চাষের জন্য উপযোগী। দাম বরাবরই ভালো থাকায় এখানকার কৃষকরা দিন দিন আখ চাষে ঝুঁকে পড়ছেন। গোপালঞ্জের মাটি দোআঁশ, এটেল ও পলিযুক্ত হওয়ায় আখের ফলন বেশি হয়। এখানে অনায়াসেই হেক্টরপ্রতি ১৩৫-১৩৬ টন আখ উৎপন্ন করা সম্ভব।

"