বঙ্গবন্ধু নিম্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়

মাঠের অভাবে শিক্ষার্থীরা খেলাধুলা থেকে বঞ্চিত

প্রকাশ : ১৭ মে ২০১৮, ০০:০০

আমতলী (বরগুনা) প্রতিনিধি

বরগুনার আমতলী উপজেলার হলদিয়া ইউনিয়নের গুরদল গ্রামে অবস্থিত বঙ্গবন্ধু নিম্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা মাঠের অভাবে খেলাধুলা থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। পর্যাপ্ত জায়গা না থাকায় ও বছরের বেশিরভাগ সময় পানি জমে থাকায় শিক্ষার্থীদের ব্যবহারের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে মাঠটি।

গতকাল বুধবার সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নামে ১৯৭২ সালে স্কুলটি প্রতিষ্ঠিত হয়। ১৯৯৬ সালে বঙ্গবন্ধুর কন্যা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সরকার গঠন করার পর স্কুলটি এমপিওভুক্ত হয় ১৯৯৯ সালে। সাতজন শিক্ষক ষষ্ঠ শ্রেণি থেকে অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত ১৫০ জন শিক্ষার্থীকে পাঠদান করাচ্ছেন। বিদ্যালয়ের কোমলমতি শিক্ষার্থীদের খেলাধুলার জন্য ছোট একটি মাঠ রয়েছে। মাঠটি ভরাট না করায় বছরের অধিকাংশ সময় পানিতে ডুবে থাকে। ফলে শিক্ষার্থীরা খেলাধুলার সুযোগ পাচ্ছে না। জানা গেছে, স্কুলটিতে কোনো ভবন ছিল না। ২০১৭-১৮ অর্থ বছরে বরগুনা-১ আসনের সংসদ সদস্য অ্যাড. ধীরেন্দ্র দেবনাথ শম্ভুর প্রচেষ্টায় ও বরগুনা জেলা পরিষদের অর্থায়নে ১২ লাখ টাকা ব্যয়ে একটি চার কক্ষবিশিষ্ট সেমিপাকা ভবন নির্মাণ করা হয়।

স্কুল ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি ও উপজেলা আ.লীগের সিনিয়র সহসভাপতি অ্যাড. এম এ কাদের মিয়া বলেন, পড়াশোনার পাশাপাশি খেলাধুলা শরীর-মন ভালো রাখে। মাঠ না থাকার কারণে স্কুলের শিক্ষার্থীরা খেলাধুলা করতে পারে না। এ সময় অবিলম্বে সরকারিভাবে স্কুলের মাঠটি ভরাটের দাবি জানান তিনি।

আমতলী উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) সরোয়ার হোসেন বলেন, স্কুলটি পরিদর্শন করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আমতলী উপজেলা চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ সভাপতি জি এম দেলওয়ার হোসেন বলেন, বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে দেখা হবে।

"