হাজারো মৃত্যুর ঝাড়ুয়ারবিল গণহত্যা দিবস আজ

প্রকাশ : ১৭ এপ্রিল ২০১৮, ০০:০০

বদরগঞ্জ (রংপুর) প্রতিনিধি

রংপুরের বদরগঞ্জে ঝাড়ুয়ারবিল-পদ্মপুকুর গণহত্যা দিবস আজ। ১৯৭১ সালের ১৭ এপ্রিলে উপজেলার রামনাথপুর ইউনিয়নে অবস্থিত ঝাডুয়ারবিল ও পদ্মপুকুর এলাকায় এদেশীয় রাজাকার ও পাক হানাদাররা প্রায় ১২শ’ নিরীহ মানুষকে হত্যা করে। তাই প্রতি বছর বদরগঞ্জে বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্য দিয়ে একাত্তরের সেই দিনকে স্মরণ করা হয়। আজ মঙ্গলবার সকালে শহীদদের স্মরণে স্মৃতিস্তম্ভ ঘিরে বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করবে রামনাথপুর ঝাড়–য়ারবিল বধ্যভুমি গণহত্যা ও মুজিবনগর দিবস উদ্যাপন কমিটি। কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে শহীদদের স্মৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পন, মিলাদ মাহফিল ও আলোচনাসভা।

কর্মসূচিতে থাকার কথা রয়েছে, রংপুর-২ আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য আবুল কালাম মো. আহসানুল হক চৌধুরী ডিউক, বদরগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ফজলে রাব্বি সুইট, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমা-ার আইয়ুব আলী সরকার। আলোচনাসভায় সভাপতিত্ব করবেন বধ্যভূমি সংরক্ষণ কমিটির সদস্য রামনাথপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আব্দুল্লাহ আল মামুন। একাত্তরের সেদিনের তা-বলীলায় এরই মধ্যে যুদ্ধাপরাধ ট্রাইব্যুনাল আলবদর কমা-ার ও জামায়াতের সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল এটিএম আজহারুল ইসলামকে ফাঁসির দ-াদেশ দিয়েছে। বর্তমানে ওই রায়ের বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতে আপিল করা হয়েছে।

এ মামলার সাক্ষী অধ্যাপক মেছের উদ্দিন বলেন, ‘এটিএম আজহারের নির্দেশে সেদিন ঝাড়য়ারবিলে ব্যাপক হত্যাযজ্ঞ, বাড়িঘরে অগ্নিসংযোগ, ব্যাপক লুটপাট ও নারীদের ধর্ষণ করা হয়। আজহারসহ পাকবাহিনী বদরগঞ্জ শহরের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে এক হিন্দু ব্যবসায়ীর বাড়ি দখল করে সেখানে শান্তি কমিটির অফিস খুলে বসে।’

ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির সভাপতি ওবায়দুল হক চৌধুরী বলেন, এটিএম আজহার মানুষ নয় পশু। যুদ্ধাপরাধ ট্রাইব্যুনাল ওই নরপশুকে মৃত্যুদ- দিয়ে সঠিক কাজটিই করেছে। উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার আইয়ুব আলী সরকার বলেন, ‘যুদ্ধাপরাধী এটিএম আজহারুলের মানবতা বিরোধী অপরাধের মামলার নিষ্পত্তি যত দ্রুত হবে ততই মঙ্গল।’ একই কথা বলেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক টুটুল চৌধুরী।

 

"