ঢাবি অস্থিতিশীল করার ‘ষড়যন্ত্রের’ প্রতিবাদ

প্রকাশ : ১৭ আগস্ট ২০১৭, ০০:০০

ঢাবি প্রতিনিধি

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়কে (ঢাবি) অস্থিতিশীল করে শিক্ষাবান্ধব পরিবেশ নষ্ট করার ‘ষড়যন্ত্রের’ প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে টিএসসিকেন্দ্রিক সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠন। গতকাল বুধবার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্যে এই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। এতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ডিবেটিং সোসাইটি, ফটোগ্রাফি সোসাইটি, মাইম অ্যাকশন, ট্যুরিস্ট সোসাইটি, সায়েন্স সোসাইটি, আইটি সোসাইটি, প্রভাতফেরি, ডিইউমুনা, ব্যান্ড সোসাইটি, কুইজ সোসাইটি, রিচার্স সোসাইটি, পরিবেশ সংসদ, নাট্যসংসদ, লিটারেচার সোসাইটি, সেøাগান-৭১, চলচ্চিত্র সংসদসহ প্রায় ২০টি সংগঠনের প্রতিনিধিরা অংশ নেন।

মানববন্ধন থেকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়কে নিয়ে নানামুখী অপপ্রচার, মিডিয়ায় ভিসির নাম বিকৃতি, সিনেট নির্বাচনকে কন্দ্রে করে একটি মহলের ষড়যন্ত্র, ডাকসু নির্বাচনের দাবিতে বহিরাগতদের দিয়ে আন্দোলনের প্রতিবাদ জানানো হয়। এতে বক্তব্য দেন ঢাবি সাংবাদিক সমিতির সভাপতি ফরহাদ উদ্দীন, সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও ব্যান্ড সোসাইটির সভাপতি লালন মাহমুদ, মাইম অ্যাকশনের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মীর লোকমান, রিচার্স সোসাইটির প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি সাইফুল্লাহ সাদেক, ফটোগ্রাফি সোসাইটির সভাপতি প্যারিস তালুকদার, ডিইউমুনার সভাপতি মোস্তফা আমির ফয়সল, পরিবেশ সংসদের সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ হোসেন, নাট্য সংসদের দফতর সম্পাদক দিগার মাহমুদ কৌশিক, সাহিত্য সংসদের সম্পাদক সাদমান সাকিল, ফিল্ম সোসাইটির শাহান সাদিক প্রমুখ।

সাংবাদিক সমিতির সভাপতি ফরহাদ উদ্দীন তার বক্তব্যে বলেন, ঢাবির শান্তিপূর্ণ পরিবেশকে অস্থিতিশীল করে ফায়দা লুটতে চায় একটি কুচক্রী মহল। ক্যাম্পাসের সুষ্ঠু শিক্ষার পরিবেশ নষ্ট করার অপচেষ্টায় লিপ্ত তারা। সকলকে ঐক্যবদ্ধভাবে এই ষড়যন্ত্র প্রতিহত করতে হবে। ব্যান্ড সোসাইটির সভাপতি লালন মাহমুদ বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের সামাজিক সাংস্কৃতিক কর্মী হিসেবে ক্যাম্পাসে সুন্দর ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশ রক্ষার যৌক্তিক দাবি নিয়ে আমরা মানববন্ধনে এসেছি। ঢাবিকে নিয়ে কোন ধরনের অপরাজনীতি করার চেষ্টা করে সফল হওয়া সম্ভব নয়। ছাত্র-শিক্ষকসহ বিশ্ববিদ্যালয় পরিবারের সবাইকে এই অপরাজনীতির বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে।

"