সোনালী ব্যাংকের সাবেক কর্মীর কারাদণ্ড

প্রকাশ : ৩১ আগস্ট ২০১৮, ০০:০০

আদালত প্রতিবেদক
ama ami

জালিয়াতির মাধ্যমে অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে ২৬ বছর আগের এক মামলায় সোনালী ব্যাংকের এক সাবেক কর্মীকে ১০ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত। গতকাল বৃহস্পতিবার ঢাকার বিশেষ বিভাগীয় জজ আদালতের বিচারক মিজানুর রহমান এ রায় দেন। আসামি শামসুদ্দিন আহমেদ চৌধুরী ওরফে আব্দুল হান্নান চৌধুরী সোনালী ব্যাংকের রমনা শাখার উপ-হিসাব রক্ষক ছিলেন। তাকে পলাতক দেখিয়েই এ মামলার বিচার চলে।

রায়ে শামসুদ্দিনকে একটি ধারায় ১০ বছরের সশ্রম কারাদ- এবং ৪ লাখ টাকা অর্থদণন্ড, অনাদায়ে আরও দুই বছরের সশ্রম করাদ- দেন বিচারক। এছাড়া অন্য একটি ধারায় তাকে তিন বছরের সশ্রম করাদ- এবং ১০ হাজার টাকা অর্থদ-, অনাদায়ে আরও ছয় মাসের বিনাশ্রম করাদ- দেওয়া হয়। রায়ে বলা হয়, দুটি ধারার দ- একসঙ্গে চলবে বলে সাজা কার্যকর হবে দশ বছরের।

এ মামলার অপর দুই আসামি মোকাদ্দেস আলী খাদেম ও সৈয়দ আহাম্মেদ খন্দকারকে বেকসুর খালস দিয়েছেন বিচারক। ১৯৯২ সালের ৫ জানুয়ারি সোনালী ব্যাংকের রমনা শাখার সহকারী মহাব্যবস্থাপক শফিউদ্দিন আহমেদ ঢাকার রমনা থানায় এ মামলা করেন।

এজাহারে বলা হয়, ব্যাংকের ওই শাখার উপ-হিসাব রক্ষক শামসুদ্দিন তার শ্যালক ব্যাংকের হিসাবধারী খাদেমের সঙ্গে যোগশাজস করে ১৯৯১ সালের বিভিন্ন তারিখে ওভার ড্রাফটের হিসাব থেকে ভুয়া জমা ও ভুয়া উত্তোলন দেখিয়ে ৩ লাখ ৬১ হাজার টাকা আত্মসাত করেন।

 

 

"