তাদের আয় ধর্ষণচেষ্টার ফাঁদ!

প্রকাশ : ২৫ আগস্ট ২০১৮, ০০:০০

চট্টগ্রাম ব্যুরো

নেত্রকোনা জেলার মোহনগঞ্জ উপজেলার সবুজ মিয়া ও আসমা বেগম দম্পতি। সারা দেশে ঘুরে ঘুরে আবাসিক হোটেলে রুম ভাড়া নিয়ে হোটেলকর্মীদের বিরুদ্ধে তোলেন ধর্ষণ কিংবা চুরির মিথ্যা অভিযোগ। পরে দাবি করেন টাকা। চাহিদামতো টাকা না দিলে থানায় ঠুকে দেন মামলা। গত ১৩ বছরে অভিন্ন কায়দায় সারা দেশে কয়েকশত প্রতারণা করেছেন এ দম্পতি। চট্টগ্রামে একই কা- করতে এসে উল্টো ফাঁদে পড়েছেন তারা। শেষ পর্যন্ত তাদের ঠিকানা হয়েছে শ্রীঘর। গত বুধবার রাতে এ ‘প্রতারক’ দম্পতিকে গ্রেফতার করেছে চট্টগ্রামের কোতোয়ালি থানা পুলিশ।

কোতোয়ালি থানার ওসি মোহাম্মদ মহসীন জানান, গত বুধবার রাতে সবুজ ও আসমা লালদিঘীর পাড়ে একটি হোটেলে কক্ষ ভাড়া নেয়। সকালে তারা হোটেলের বাইর হয়ে রুমে ফিরে এক হোটেল বয়ের চুরির অভিযোগ করেন। তখন তারা ১০ হাজার টাকা দাবি করে ওই বয়কে মারধরের চেষ্টা করে ১০ হাজার টাকা দাবি করে। হোটেল কর্তৃপক্ষ টাকা দিতে রাজি না হওয়ায় তারা ধর্ষণচেষ্টার মামলার ভয় দেখান। পরে খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গেলে তাদের আচরণ সন্দেহজনক হওয়া জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়।

"