বিদ্যুৎ খাতে ৩০০ কোটি ডলারের বিনিয়োগ চুক্তি

* বাংলাদেশের সামিট করপোরেশন * যুক্তরাষ্ট্রের জেনারেল ইলেকট্রিক (জিই) * জাপানের মিৎসুবিশি করপোরেশন

প্রকাশ : ১২ জুলাই ২০১৮, ০০:০০

নিজস্ব প্রতিবেদক

বাংলাদেশের বেসরকারি খাতের বিদ্যুৎ উৎপাদনকারী কোম্পানি সামিট করপোরেশন, যুক্তরাষ্ট্রের জেনারেল ইলেকট্রিক (জিই) কোম্পানি ও জাপানের মিৎসুবিশি করপোরেশন মিলে ৩০০ কোটি ডলার বিনিয়োগের ঘোষণা দিয়েছে। গতকাল বুধবার রাজধানীর হোটেল সোনারগাঁওয়ে তিন কোম্পানির শীর্ষ কর্মকর্তারা এ বিষয়ে একটি সমঝোতা স্মারকে সই করেছেন বলে সামিট পাওয়ার ইন্টারন্যাশনালের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে।

প্রায় ২৪ হাজার কোটি টাকার এই বিনিয়োগ প্রকল্পের আওতায় জিইর প্রধান পণ্য ৯এইচএ গ্যাস টারবাইন ব্যবহার করে ৬০০ মেগাওয়াট করে মোট ২ হাজার ৪০০ মেগাওয়াট ক্ষমতার চারটি বিদ্যুৎ কেন্দ্র, মোট ৩ লাখ ৮০ হাজার মিটার গ্যাস উৎপাদন ক্ষমতার দুটি এলএনজি টার্মিনাল, এক লাখ টন ক্ষমতার একটি তেলের টার্মিনাল ও ৩০০ মেগাওয়াটের একটি এইচএফও ভিত্তিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র স্থাপন করা হবে। এই প্রকল্পে বিশ্বের সবচেয়ে কার্যকরী ও পরিবশেবান্ধব প্রযুক্তি ব্যবহার করা হবে বলে বিজ্ঞপ্তিতে দাবি করা হয়েছে।

সামিট গ্রুপের চেয়ারম্যান মুহাম্মদ আজিজ খান, মিৎসুবিশি করপোরেশনের ইনফ্রাস্ট্রাকচার বিজনেস ডিভিশনের সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট তেতসুজি নাকাগাওয়া, জিই পাওয়ারের প্রেসিডেন্ট ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) রাসেল স্টোকস নিজ নিজ কোম্পানির পক্ষে চুক্তিতে সই করেন। এ সময় প্রধানমন্ত্রীর বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদবিষয়ক উপদেষ্টা তৌফিক-ই-এলাহী চৌধুরী, বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ, বিদ্যুৎ সচিব আহমদ কায়কাউস, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ সচিব আবু হেনা মো. রহমাতুল মুনিম ও বাংলাদেশ বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ডের (বিপিডিবি) চেয়ারম্যান খালেদ মাহমুদ উপস্থিত ছিলেন।

সামিটের চেয়ারম্যান মুহাম্মদ আজিজ খান জানান, সরকারের ভিশন ২০২১ এবং ২০৩০ বাস্তবায়নে সামিট, জিই এবং মিৎসুবিশির সঙ্গে অংশীদারিত্বের মাধ্যমে বাংলাদেশে সবচেয়ে বড় বেসরকারি বৈদেশিক সরাসরি বিনিয়োগ আনছে (এফডিআই) যেন জনগণ এবং ব্যবসা ক্ষেত্রে ক্রমবর্ধমান বিদ্যুৎ এবং জ্বালানি চাহিদা সবচেয়ে সেরা প্রযুক্তি এবং কম দামে সরবরাহ করা যায়।

"