বর্ণবাদকে মুকুন্দের জবাব

প্রকাশ : ১১ আগস্ট ২০১৭, ০০:০০

ক্রীড়া ডেস্ক

অনেক দিন ধরে চুপচাপ সহ্য করছিলেন। কিন্তু শেষ পর্যন্ত মুখ খুললেন অভিনব মুকুন্দ। হয়তো অনেকটা খারাপ লাগা নিয়েই একটা চিঠি লিখে ফেললেন এ মুহূর্তে ভারতীয় দলের নির্ভরযোগ্য এই ওপেনার। যেখানে তিনি শুরু করেছেন এভাবে, ‘ডিয়ার ফ্রেন্ডস অ্যান্ড ফলোয়ার’। তারপর মুকুন্দ অনেক কথাই বলেছেন যার পুরোটা জুড়ে ছিল তার আবেগ আর খারাপ লাগা। মূলত বর্ণবৈষম্যে বিক্ষুব্ধ হয়েই মুকুন্দের এই চিঠি। এই বর্ণবৈষম্য নিয়ে প্রায় প্রতিদিনই সোশ্যাল মিডিয়ায় ঝড় উঠছে। বিশেষ করে কিছুদিন ধরেই ভারতের নানা ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য তারকারা বর্ণবাদের অভিযোগ আনছেন। কয়েক দিন আগে শক্তিমান অভিনেতা নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকীও এক পরিচালকের বিরুদ্ধে বর্ণবাদের অভিযোগ এনেছিলেন। প্রতিদিনই সেই তালিকায় যুক্ত হচ্ছেন কেউ না কেউ। এবর বাদ যাননি ভারতের ক্রিকেটাররাও। সে বিদেশের মাটিতে হলে তা-ও মেনে নেওয়া যায়। কিন্তু যদি দেশের সমর্থকরাই প্রশ্ন তোলেন, অযথা আক্রমণ করেন, তা হলে ঠিক কেমন লাগে? তা বোঝা যাচ্ছে অভিনব মুকুন্দের পোস্ট দেখে। যেখানে অভিনব তার শুরুর দিনগুলোকে মনে করেছেন। মুকুন্দ সেই চিঠিতে লেখেন, ‘১৫ বছর বয়স থেকেই আমি দেশ-বিদেশে খেলে চলেছি। কেন জানি না, মানুষ আমার গায়ের রং নিয়ে অনেক কথা বলে। আজও আমার কাছে এটা রহস্যের মতো। দিনের পর দিন মাঠে রোদের মধ্যে থেকেছি আমি। অবশ্যই এটা করতে ভালোবাসি। ক্রিকেট থেকে কিছু অর্জন করতে ঘরের বাইরে অনেক সময় কাটাতে হয়ে আমাকে। আর তা ছাড়া দেশের সবচেয়ে উষ্ণতম জায়গা চেন্নাইতে আমার বাড়ি।

আমাকে অনেক বাজে নামে ডাকা হয়, সেগুলো শুনেও না শোনার ভাব করি আমি। অনেক সময় কথাগুলোর প্রতিবাদ করতে চেয়েছি। করা হয়ে ওঠেনি। আজ করছি। কেবল নিজের জন্য নয় সবার জন্য যারা এমন ঘটনার শিকার হয়েছেন।

"