ঈদের পরই খেলতে মরিয়া ক্রিকেটাররা

প্রকাশ : ২৩ মে ২০২০, ০০:০০

ক্রীড়া প্রতিবেদক

ঈদের পর ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ (ডিপিএল) ডিপিএল মাঠে গড়ানোর পক্ষে জাতীয় দলের ক্রিকেটার ইমরুল কায়েস। কদিন আগে ডিপিএল মাঠে গড়াতে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডকে (বিসিবি) এমন একটি চিঠি দেওয়ার কথা জানায় ক্রিকেটারদের সংগঠন কোয়াব। এরপর থেকেই করোনা আতঙ্কের মাঝে বেশিভাগ ক্রিকেটাররা আগ্রহী হয়ে ওঠে খেলতে। যদিও বাস্তবতা মেনে ক্রিকেট কমিটি অব ঢাকা মেট্রোপলিসের (সিসিডিএম) চেয়ারম্যান কাজী এনাম আহমেদ বলছেন, করোনা পরিস্থিতি উন্নতি না হওয়া পর্যন্ত সিদ্ধান্ত নেওয়ার সময় আসেনি।

গেল বছরের অক্টোবরে ক্রিকেটারদের আচমকা আন্দোলন বিস্মিত করেছে সবাইকে। অনেক দাবি মেনেও নিয়েছে বোর্ড। বেশ কিছু দাবি ছিল ক্রিকেটারদের স্বার্থ সংশ্লিষ্ট সংগঠন কোয়াবের প্রতিও। এরপর থেকেই কোয়াব সক্রিয়। মহামারির এই দুঃসময়ে ঘরোয়া ক্রিকেট খেলেন এমন সব ক্রিকেটারদের পাশে দাঁড়িয়েছে তারা।

কিন্তু দেশে থামছেই না করোনার আগ্রসন। বরং বেড়েই চলছে দিনকে দিন। এ অবস্থায় ক্রিকেটারদের আয়ের পথ বন্ধ। তাই গেল সপ্তাহে কোয়াবের নীতি নির্ধারকরা সিদ্ধান্ত নেয় ঈদের পরপরই যেন ঢাকা লিগ আবার শুরু করা যায়। ব্যাপারটি বেশ ইতিবাচক হিসেবেই দেখছেন ক্রিকেটাররা।

তবে বাস্তবতা বলছে ভিন্ন কথা। দেশে করোনার প্রাদুর্ভাব বৃদ্ধি পাচ্ছে ভয়াবহ আকারে। যেখানে মানুষের জীবন-মরণের প্রশ্ন, সেখানে ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ মাঠে গড়ানোর ব্যাপারটি দিবা স্বপ্নই। তাই আপাতত ডিপিএলের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়ার মতো সময় আসেনি বলে মানছেন সিসিডিএম প্রধান।

এর আগে করোনারভাইরাইসের কারণে কয়েক দফা ডিপিএল পেছানো হলেও মহামারি বিস্তারের কারণে আসরটি অনির্দিষ্টকালের জন্য স্থগিত করেছে বোর্ড। গত মার্চে শুরু হওয়া ডিপিএল এক রাউন্ড শেষেই বন্ধ করা হয়েছিল।

 

"