সালাহকে ট্যাকল করে বর্ণবাদের শিকার ‘বাংলাদেশি’ হামজা

প্রকাশ : ০৭ অক্টোবর ২০১৯, ০০:০০

ক্রীড়া ডেস্ক

ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে (ইপিএল) বাজে ট্যাকেল করায় বর্ণবাদের শিকার হলেন বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত হামজা চৌধুরী। পরশু রাতে লিভারপুল ও লেস্টার সিটির ম্যাচের পর এ ঘটনা ঘটে। অলরেড তারকা মোহামেদ সালাহকে বাজেভাবে ট্যাকল করেছিলেন লেস্টারের হামজা।

এরপরই এ মিডফিল্ডারকে নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ছেয়ে যায় বর্ণবাদী মন্তব্যে। বদলি হিসেবে ৮৬ মিনিটে মাঠে নেমেছিলেন হামজা। ৩ মিনিট পরই সালাহকে বাজেভাবে ট্যাকল করেন তিনি। বাঁ-পায়ের গোড়ালিতে গুরুতর আঘাত পেয়ে সঙ্গে সঙ্গে মাটিতে লুটিয়ে পড়েন মিসরীয় তারকা। আর লেস্টার মিডফিল্ডার হামজাকে হলুদ কার্ড দেখান রেফারি।

ম্যাচ শেষ হতেই অ্যানফিল্ডে হামজাকে উদ্দেশ্য করে গ্যালারিতে বর্ণবাদী মন্তব্য করেন লিভারপুলের উগ্র সমর্থকরা। এরপর বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত মিডফিল্ডারকে টুইটার, ফেসবুকের মতো সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে বর্ণবাদী মন্তব্য করেন অনেকে। হামজাকে উদ্দেশ্য করে নেটিজেনরা পোস্টে ‘বানর’, ‘এশিয়ান ব্ল্যাক’, ‘নোংরা জানোয়ার’, ‘গুহায় ফিরে যাও’Ñ এমন সব বর্ণবাদী শব্দ ব্যবহার করেছেন। এদিকে, সালাহকে ট্যাকল করায় হামজার ওপর ক্ষেপেছেন লিভারপুল বস ইয়ুর্গেন ক্লপ, ‘এটা কেমন ধরনের চ্যালেঞ্জ আমি বুঝতে পারছি না। এটা অত্যন্ত বিপজ্জনক। এমন পরিস্থিতে তাকে (হামজা) মাথা ঠা-া রাখতে হবে।’

ইংলিশর ক্লাব ফুটবলে সমর্থকদের বর্ণবাদী আচরণ এবারই প্রথম নয়। মার্কাস রাশফোর্ড এবং পল পগবাকেও সাম্প্রতিক সময়ে একই রকম বর্ণবাদ সহ্য করতে হয়েছে। অবশ্য এই কঠিন সময়ে ক্লাবকে পাশে পাচ্ছেন হামজা। বর্ণবাদী মন্তব্যের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থার গ্রহণ করছে লেস্টার। উল্লেখ্য, হামজার মা বাংলাদেশি ও বাবা গ্রানাডিয়ান। হামজার নানারবাড়ি বাংলাদেশের হবিগঞ্জ জেলার বাহুবল উপজেলার দেওয়ানবাড়ী গ্রামে। শৈশবে বহুবার এই গ্রামে এসেছেন হামজা।

 

"