বাঁকা চোখে

প্রকাশ : ০৭ জুলাই ২০১৯, ০০:০০

অনলাইন ডেস্ক

গর্বিত

বিশ্বকাপে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে খেলা শেষেই এক দিনের ক্রিকেট থেকে অবসর নিলেন পাকিস্তানের অলরাউন্ডার শোয়েব মালিক। বিশ্বকাপে খুব ভালো ফর্মে ছিলেন না তার। শেষ ম্যাচে সুযোগও পাননি প্রথম একাদশে। যদিও ফিল্ডিং করার জন্য অতিরিক্ত খেলোয়াড় হিসেবে মাঠে নামেন শোয়েব। লর্ডসে ম্যাচের শেষে বহু যুদ্ধের সৈনিক শোয়েব মালিককে ‘গার্ড অব অনার’ দেন সতীর্থরা।

টুইট করে শোয়েব মালিক ধন্যবাদ জানান তার ভক্তদের। শোয়েবের অবসর নিয়ে টুইট করেন তারকা টেনিস খেলোয়াড়। সানিয়া মির্জা টুইট করে লেখেন, ‘সব কাহিনিরই একটা শেষ আছে। তবে জীবনে সব শেষের মধ্যেই যে শুরুর ইঙ্গিত থাকে। গত ২০ বছর ধরে তুমি সম্মানের সঙ্গে দেশকে গর্বিত করেছো। তুমি যা অর্জন করেছো তা নিয়ে ইজান ও আমি গর্বিত।’

 

আশার বাণী

ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড-বিসিসিআইয়ের সঙ্গে আর্থিক সমস্যার সমাধান না হলে, পরবর্তী বিশ্বকাপ বাংলাদেশে আয়োজনের ব্যাপারটি বিবেচনায় রেখেছে ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিল-আইসিসি। ‘সময় সংবাদে’ এমনটাই বলেছেন আইসিসির প্রধান নির্বাহী ডেভিড রিচার্ডসন।

গত কয়েক বছরে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড ও আইসিসির মাঝে রাজস্ব অর্থের লেনদেন নিয়ে জটিলতা সৃষ্টি হয়েছে। কয়েক দফা বৈঠক করেও, এর সমাধান না হওয়ার পর গত মাসে আইসিসির প্রধান নির্বাহীর কাছে সময় সংবাদ জানতে চেয়েছিল আদৌ কি এই সমস্যার সমাধান হবে? আর না হলে কী করবে ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থা? আইসিসির প্রধান নির্বাহী সাফ জানিয়েছিলেন, বিসিসিআই অর্থ পরিশোধে ব্যর্থ হলে ভারত থেকে ২০২৩ বিশ্বকাপ সরিয়ে নেওয়া হবে। কিন্তু, এখনো বিসিসিআই জটিলতার সমাধানে কোনো উদ্যোগ নেয়নি। তাই শেষ পর্যন্ত যদি বিসিসিআইয়ের সঙ্গে আইসিসি আর্থিক লেনদেন সমঝোতা না হয়। সেক্ষেত্রে পরবর্তী বিশ্বকাপ বাংলাদেশে আয়োজনের কথা ভাবছে আইসিসি।

 

"