বিশ্বকাপে থাকছে দুর্নীতি দমন কর্মকর্তা

প্রকাশ : ১৫ মে ২০১৯, ০০:০০

ক্রীড়া ডেস্ক

এবারের ক্রিকেট বিশ্বকাপে অংশ নিচ্ছে ১০টি দল। কম দল অংশ নিলেও আসরের পরিধি বেশ বড়। পরিধি বাড়ায় থাকছে ম্যাচ ফিক্সিং থেকে শুরু করে একাধিক রকমের দুর্নীতি হওয়ার সম্ভাবনাও।

তবে ইংল্যান্ড বিশ্বকাপকে সবার সামনে নজির হিসেবে তুলে ধরতে বদ্ধপরিকর আইসিসি। সেজন্য ১০ দলের সঙ্গে একজন করে দুর্নীতি দমন কর্মকর্তা রাখার ব্যবস্থা করছে ক্রিকেটের অভিভাবক সংস্থাটি (আইসিসি)।

‘দ্য টেলিগ্রাফ’র প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, প্রস্তুতি ম্যাচ শুরু থেকে প্রতিটি দলের সঙ্গে থাকবেন একজন করে দুর্নীতি দমন কর্মকর্তা। আসর শেষে দেশের বিমানে উঠার আগ পর্যন্ত দলের সঙ্গে থাকবেন সেই কর্মকর্তা।

প্রতিবেদনে উল্লেখ আছে, ‘অতীতে প্রতিটি ভেন্যুতে একজন করে কর্মকর্তা বরাদ্দ রাখত আইসিসির দুর্নীতি দমন ইউনিট (আকসু)। এর ফলে মাঠের বাইরে এসব কর্মকর্তাদের দেখা পেতেন না ক্রিকেটাররা।’

‘তবে এই কর্মকর্তারাই এখন থেকে প্রতিটি দলের সঙ্গে প্রস্তুতি ম্যাচের শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত থাকবেন। খেলোয়াড়রা মাঠ কিংবা শপিং মলে যেখানেই যান না কেন, তাদের সঙ্গে থাকবেন এই কর্মকর্তারা।’

কেবল দুর্নীতি ঠেকাতেই যে এ কর্মকর্তাদের নিয়োগ দিচ্ছে আকসু তেমনটাও নয়, বরং ক্রিকেটারদের সঙ্গে আকসুর যাতে একটা নিবিড় সম্পর্ক গড়ে উঠে সেই চেষ্টাও আছে সংস্থাটির। অর্থাৎ, যেকোনো অসংগতি দেখলেই ক্রিকেটাররা যেন আকসু কর্মকর্তাদের শরণাপন্ন হতে পারেন সেটাই মূলত উদ্দেশ্য।

 

"