কাল ভোরে হোয়াইটওয়াশ ঠেকানোর মিশন শুরু

মুশফিক খেলবেন তো?

প্রকাশ : ১৫ মার্চ ২০১৯, ০০:০০

ক্রীড়া ডেস্ক

প্রথম দুই টেস্টে ছিলেন না মুশফিকুর রহিম। তার অনুপস্থিতিতে ভালোই ভুগেছে বাংলাদেশের ব্যাটিং বিভাগ। দুই টেস্টেই নিউজিল্যান্ডের কাছে ইনিংস ব্যবধানে হেরেছে টাইগাররা। কাল ভোরে শুরু হচ্ছে মাহমুদউল্লাহদের হোয়াইটওয়াশ ঠেকানোর মিশন। এই লড়াইয়ের আগে কিছুটা স্বস্তি সফরকারী শিবিরে। কাল নেটে পুরোদমে ব্যাটিং অনুশীলন করেছেন মুশফিকুর রহিম। ক্রাইস্টচার্চে তৃতীয় ও শেষ টেস্টে তিনি খেলবেন কি না এ নিয়ে আশাবাদী পুরো দল।

তবু সংশয় আছে তাকে ঘিরে। মুশফিককে নিয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিতে আরো একটু অপেক্ষা করবে বাংলাদেশের টিম ম্যানেজমেন্ট। আজকের অনুশীলনের পরই চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। একাদশে হয়তো ফিরবেন মুশি, কিন্তু ছন্দে ফিরতে পারবেন তো? ওয়ানডে সিরিজ খেলে খুব একটা সুবিধা করতে পারেননি তিনি। নেপিয়ারের প্রথম ওয়ানডেতে করেছিলেন ৫, ক্রাইস্টচার্চে আউট হয়েছেন ২৪ রানে। ডানেডিনে আঙুলে চোট পাওয়ার ম্যাচে আউট হয়েছিলেন ১৭ রানে।

আগের দুই টেস্টে হারের কারণ হিসেবে ব্যাটসম্যানদের কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়েছিলেন বাংলাদেশ অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। হারের দায়টা বর্তায় অনভিজ্ঞ বোলারদের ওপরও। তাই তরুণ পেসারদের পাশে ঢাল হয়ে দাঁড়িয়েছিলেন অধিনায়ক। কাল ভোর থেকে শুরু হওয়া টেস্টেও অনভিজ্ঞ বোলিং আক্রমণ নিয়ে নিউজিল্যান্ডের মুখোমুখি হবে টাইগাররা। সেখানে কিউইদের পেস বিভাগে আছেন অভিজ্ঞ নিল ওয়াগনার, ট্রেন্ট বোল্ট ও টিম সাউদি। এই ত্রয়ী প্রথম দুই টেস্টে বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানদের ভালোই পরীক্ষা নিয়েছেন। সেই তুলনায় টাইগারদের বোলিং বিভাগ নখদন্তহীন।

অবশ্য আগের ম্যাচ দুটিতে বোলাররা হতাশ করলেও তৃতীয় ও শেষ টেস্টে মাঠে নামার আগে আশারবাণী শোনাতে পারেননি দলের প্রতিনিধি হয়ে আসা আবু জায়েদ রাহি। কার্যত অভিজ্ঞতা সঞ্চারণকেই অগ্রাধিকার দিচ্ছেন এই পেসার। কাল ক্রাইস্টচার্চে অনুশীলন শেষে রাহি বলেছেন, ‘আমরা যে কজন পেসার খেলছি, তাদের মধ্যে মুস্তাফিজ শুধু ১১ (১৩টি) ম্যাচ খেলছে। তাই আমার কাছে মনে হয়, আরো টেস্ট খেলা উচিত। আরো খেলার সুযোগ দেওয়া উচিত। অন্যান্য দেশের বোলারদের দেখেন অনেক টেস্ট খেলছে। টেস্ট হলো অভিজ্ঞতার ক্রিকেট। যত বেশি টেস্ট খেলবেন, তত অভিজ্ঞ হবেন এবং বুঝতে পারবেন টেস্ট ক্রিকেট কেমন।’

 

"