শালকেকে গুঁড়িয়ে শেষ আটে ম্যানচেস্টার সিটি

প্রকাশ : ১৪ মার্চ ২০১৯, ০০:০০

ক্রীড়া ডেস্ক

শালকে জিরো ফোরের মাঠে প্রথম লেগে ৩-২ গোলের জয়। দ্বিতীয় লেগ ঘরের মাঠ ইতিহাদ স্টেডিয়ামে স্বাভাবিকভাবেই এগিয়ে ছিল ম্যানচেস্টার সিটি। তাই বলে জার্মান ক্লাবটিকে ডেকে এনে এমন ছেলেখেলা করবে পেপ গার্দিওলার দল! পরশু দ্বিতীয় লেগে শালকেকে গোল বন্যায় ভাসিয়ে দিয়েছে সিটিজেনরা। ইংলিশ ক্লাবটি জিতেছে ৭-০ গোলে! দুই লেগ মিলিয়ে ১০-২ গোলের জয়ে কোয়ার্টার ফাইনালে উঠে গেল সিটি।

পরশু দলের পক্ষে জোড়া গোল করেন সার্জিও অ্যাগুয়েরো। একটি করে করেন রহিম স্টার্লিং, লিরয় সানে, বার্নাডো সিলভা, গ্যাব্রিয়েল জেসুস ও ফিল ফোডেন। শালকের মাঠে ১৪ মিনিটেই এগিয়ে যেতে পারত ইংলিশ লিগ চ্যাম্পিয়নরা। তবে স্টার্লিংয়ের কাটব্যাকে খুব কাছে থেকেও শট লক্ষ্যে রাখতে পারেননি অ্যাগুয়েরো। পরে দুবার গোলরক্ষক বরাবর মেরে সুযোগ নষ্ট করেন তিনি।

৩৫ মিনিটে অ্যাগুয়েরোর পেনাল্টি গোলে এগিয়ে যায় সিটি। সিলভাকে ডি-বক্সে জেফরি ব্রুমা ফেলে দিলে ভিএআর প্রযুক্তির সহায়তা নিয়ে পেনাল্টি দিয়েছিলেন রেফারি। ৩ মিনিট পর ব্যবধান দ্বিগুণ করেন আর্জেন্টিনার তারকা স্ট্রাইকার। বাইলাইন থেকে স্টার্লিংয়ের কাটব্যাক গোলরক্ষকের দুই পায়ের ফাঁক দিয়ে ঠিকানায় পাঠান তিনি। ৪২ মিনিটে ব্যবধান ৩-০ করে ফেলেন সানে। অ্যালেক্সান্ডার জিনচেনকোর পাস থেকে কোনাকুনি শটে জাল খুঁজে নেন এই জার্মান মিডফিল্ডার।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতেই বাড়তে পারত ব্যবধান। তবে গোলরক্ষককে একা পেয়েও বাইরে মেরে সুযোগ হাতছাড়া করেন সানে। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে সিটির সবশেষ ম্যাচে হ্যাটট্রিক করা স্টার্লিং ৫৬ মিনিটে ব্যবধান ৪-০ করেন। সানের বাড়ানো বলে জাল খুঁজে নেন এই ইংলিশ মিডফিল্ডার। লাইনসম্যান অফসাইডের পতাকা তুললেও রেফারি ভিএআরের সাহায্য নিয়ে গোলের বাঁশি বাজান।

সানের আরেকটি দুর্দান্ত পাসে ৭১ মিনিটে পঞ্চম গোলটি করেন সিলভা। ৭ মিনিট পর জার্মান মিডফিল্ডারের দুর্দান্ত থ্রু পাসে জালে বল পাঠান খানিক আগে বদলি নামা ফোডেন। ৮৪ মিনিটে দলের সপ্তম গোলটি করেন অ্যাগুয়েরোর জায়গায় বদলি নামা জেসুস। ডি-বক্সের বাইরে থেকে বুলেট গতির বাঁকানো শটে ঠিকানায় বল পাঠান তরুণ ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড। শেষ বাঁশি হতেই যেন হাঁফ ছেড়ে বাঁচল জার্মান ক্লাব শালকে জিরো ফোর। সিটির মাঠে আতিথেয়তা নিতে এসে কী দুঃস্বপ্নটাই উপহার পেল তারা! চলতি মৌসুমে এ নিয়ে ১০ বার ৫টির বেশি করে গোল করল সিটি। চ্যাম্পিয়নস লিগের সবশেষ চার আসরে এনিয়ে তৃতীয়বার শেষ আটে গেল দলটি।

 

"