অঘটনের শিকার আর্সেনাল

চেলসির সহজ জয়

প্রকাশ : ০৯ মার্চ ২০১৯, ০০:০০

ক্রীড়া ডেস্ক

ইউরোপা লিগের শেষ ষোলোর প্রথম লেগে ফরাসি ক্লাব রেঁনের মাঠে ৩-১ ব্যবধানে হেরেছে আর্সেনাল। প্রথমার্ধেই অবশ্য দশজনের দল হয়ে পড়েছিল। ৪১ মিনিটে গ্রিক ডিফেন্ডার সক্রেটিস পাপাস্তাপোলোস লাল কার্ড দেখে মাঠ ছাড়লে ম্যাচ থেকে ছিটকে পড়ে গানাররা। অথচ ম্যাচে তৃতীয় মিনিটেই রেঁনে সমর্থকদের হাসি কেড়ে নিয়েছিলেন আলেক্স আইওবি। কিন্তু দশজনের দল নিয়ে ব্যবধানটা ধরে রাখতে পারেনি আর্সেনাল। সক্রেটিসের মাঠ ছাড়ার পরের মিনিটে সমতায় ফেরে রেঁনে।

৬৫ মিনিটে নিজেদের ভুলেই পিছিয়ে পড়ে আর্সেনাল। গোলপোস্ট বাঁচাতে গিয়ে উল্টো নিজেদের জালে বল জড়িয়ে দেন স্প্যানিশ ডিফেন্ডার নাচো মনরিয়েল। এরপর কিছুটা গা-ঝাড়া দিয়ে আক্রমণ শানায় উনাই এমেরির দল। কিন্তু সফলতা আসার আগে ৮৮ মিনিটে তৃতীয় গোল হজম করে বসে তারা। শেষ পর্যন্ত সেই ব্যবধান আর গুছানো হয়নি আর্সেনালের। এই নিয়ে চার ম্যাচ অপরাজিত থাকার পর হারল গানাররা।

অ্যাওয়ে গোলের সুবিধা থাকায় শেষ আটে যেতে হলে ফিরতি লেগে আর্সেনালকে ২-০ গোলে জিততে হবে। পরশু হারলেও অবশ্য ঘরের মাঠ এমিরেটস স্টেডিয়ামের ফিরতি লেগে জয় নিয়ে শেষ আটে যাওয়ার প্রতি ‘আস্থাশীল’ এমেরি। লাল কার্ড যে ম্যাচের মোড় ঘুরিয়ে দিয়েছে; তা স্বীকার করে ফরাসি কোচ বলেন, ‘লাল কার্ডই ম্যাচের মোড় ঘুরিয়ে দেয়। প্রথম ৪০ মিনিট ম্যাচ আমাদের দখলে ছিল। আমরা গোল করেছি, প্রতিযোগিতা করেছি।’

রাতের আরেক ম্যাচে বড় জয়ে শেষ আটের পথে এক পা দিয়ে রেখেছে চেলসি। ব্লুজরা ঘরের মাঠ স্টামফোর্ড স্টেডিয়ামে ৩-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে ইউক্রেনের ক্লাব ডায়নামো কিয়েভকে।

অধিকাংশ সময় বল দখলে রেখে প্রতিপক্ষের উপর চাপ ধরে রাখা চেলসি ১৭ মিনিটে পেদ্রোর গোলে এগিয়ে যায়। অলিভিয়ের জিরার্ডের সঙ্গে বল দেওয়া-নেওয়া করে লক্ষ্যভেদ করেন এই স্প্যানিশ ফরোয়ার্ড। ৬৫ মিনিটে বাঁ-দিক থেকে দুর্দান্ত এক ফ্রি-কিকে রক্ষণ প্রাচীরের ওপর দিয়ে কাছের পোস্টঘেঁষে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন ব্রাজিলিয়ান মিডফিল্ডার উইলিয়ান। আর শেষ মিনিটে ডি-বক্সে সতীর্থের ছোট পাস নিয়ন্ত্রণে নিয়ে জোরালো শটে ব্যবধান আরো বাড়ান ইংলিশ ফরোয়ার্ড ক্যালাম হাডসন-ওডোই। আগামী বৃহস্পতিবার ফিরতি পর্বে কিয়েভের মাঠে খেলবে মাওরিসিও সাররির দল।

 

 

"