অশ্রুভেজা বিদায়ের ঘোষণা অ্যান্ডি মারের

প্রকাশ : ১২ জানুয়ারি ২০১৯, ০০:০০

ক্রীড়া ডেস্ক

ক্যারিয়ারে প্রতিপক্ষের সঙ্গে লড়াই করে জিতেছেন। কিন্তু শেষ পর্যন্ত চোটের কাছে হার মানতে হলো অ্যান্ডি মারেকে। চোটের ফলে বাধ্য হয়ে টেনিস থেকে অবসরের কঠিন সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেললেন ব্রিটিশ টেনিস তারকা। কাল সংবাদসম্মেলনে অশ্রুসিক্ত চোখে মারে জানিয়েছেন, অস্ট্রেলিয়ান ওপেনই হাতে পারে তার ক্যারিয়ারের শেষ গ্র্যান্ড সø্যাম।

সাবেক নাম্বার ওয়ান গত জানুয়ারিতে ‘হিপ’ ইনজুরিতে পড়েন। অস্ত্রোপচারের পর জুনে ফেরেন কোর্টে। এরপর সব ধরনের প্রতিযোগিতা মিলিয়ে খেলেছেন ১৪টি ম্যাচ। কিন্তু সেই চেনা মারেকে আর দেখা যায়নি। প্রতিটি হারের পরই মারে বলতেন, ‘হিপে এখনো ব্যথা অনুভূত হয় আমার।’ অস্ত্রোপচারের ২০ মাস পেরিয়ে গেলেও সেই ব্যথাটা রয়ে গেছে তার।

সংবাদসম্মেলনে কাল সাংবাদিকদের প্রথম প্রশ্ন ছিল, ‘হিপ ইনজুরির কী অবস্থা এখন?’ উত্তর দিতে গিয়ে কেঁদে ফেলেন মারে। অশ্রুভেজা স্বরে বলেন, ‘ভালো নয়। আমি দীর্ঘদিন যাবৎ ব্যথায় ভুগছি। গত ২০ মাস ধরেই আমার হিপে প্রচন্ড ব্যথা। গত ছয় মাসের তুলনায় যদিও এখন আমি কিছুটা ভালো অবস্থানে। তবে এখনো অনেক ব্যথা। আমি হয়তো একটা লেভেল পর্যন্ত পারফরম্যান্স করতে পারব। কিন্তু আগের মতো আর খেলতে পারব না।’

এরপরই অবসরের কথা জানান ৩১ বছর বয়সী মারে, ‘আমি জানি না, এই ব্যথা নিয়ে আরো চার-পাঁচ মাস খেলে যাওয়া সম্ভব হবে কি না। আমি উইম্বলডন খেলে বিদায় নিতে চেয়েছিলাম। কিন্তু আমি সে নিশ্চয়তাও দিতে পারছি না এখন।’

আগামী সোমবার অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের শুরু থেকে প্রথম রাউন্ডে স্পেনের রবার্তো বাতিস্তা আগুতের মুখোমুখি হবেন মারে। এই আসরে র‌্যাঙ্কিংয়ের ২৩০তম তারকা হিসেবে অংশ নিচ্ছেন তিনি।

ফেদেরার, নাদাল, জোকোভিচদের যুগে জন্ম নেওয়াটা যেন ভুল ছিল মারের। আটটি ফাইনালে হারা মারে শুধু অস্ট্রেলিয়ান ওপেনেই হেরেছেন পাঁচটি ফাইনাল। জিতেছেন ক্যারিয়ারে দুটি উইম্বলডন, একটি ইউএস ওপেন আর দুটি অলিম্পিক সোনা। এরপরও ব্রিটেনের ইতিহাসে সেরা তারকা মারে বছর দুয়েক আগে সম্মানজনক ‘নাইট’ উপাধিতে ভূষিত হন।

"