পগবার শত্রুবেশে ঘরেফেরা

প্রকাশ : ০৭ নভেম্বর ২০১৮, ০০:০০

ক্রীড়া ডেস্ক

ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো ও পল পগবার মধ্যে চমৎকার একটা মিল আছে। বিশেষ করে দুই তারকাকে একবিন্দুতে দাঁড় করিয়েছে চলতি মৌসুম। গত মাসে শত্রুবেশে ঘরে ফিরেছিলেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো। পেশাদারি ফুটবলে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের জার্সিতে নিজের জাত চিনিয়েছিলেন পর্তুগিজ উইঙ্গার। কিন্তু জুভেন্টাসকে নতুন ঠিকানা বানানোর পর সিআর সেভেনকে ওল্ড ট্রাফোর্ডে যেতে হয়েছে শত্রুবেশে। অন্যদিকে জুভেন্টাসের জার্সিতে ক্যারিয়ারের মধ্যগগণে ছিলেন পগবা। তবে আজ ফরাসি উইঙ্গারকে তুরিনে যেতে হচ্ছে পুরনো সতীর্থদের বিপক্ষে লড়াই করার জন্য।

অবশ্য পগবা ক্লাব ক্যারিয়ার শুরু করেছিলেন ম্যানচেস্টার ইউনাটেডের হয়ে। ২০১১-১২ মৌসুমে রেড ডেভিলদের হয়ে মাঠে নেমেছিলেন মাত্র তিন ম্যাচে। এরপরই নতুন ঠিকানা হিসেবে বেঁচে নেন তুরিনকে। চার বছর তুরিনের বুড়িদের হয়ে মুকুটে যুক্ত করেছেন বহু স্বর্ণের পালক। ২০১৬ থেকে পুনরায় ফিরে আসেন ওল্ড ট্রাফোর্ডে। এরই মধ্যে ফ্রান্সের জার্সিতে বিশ্বকাপটাও জিতেছেন পগবা। আজ যখন তুরিনে ফিরবেন নিশ্চয় পুরনো সতীর্থদের দেখে স্মৃতিতে ভাসতে পারেন ২৫ বছর বয়সী মিডফিল্ডার। কিন্তু পেশাদারি ফুটবলে আবেগের কোনো স্থান নেই। তাই আজ প্রমাণ করতে হবে পগবাকে। সেই সঙ্গে উঁকি দিচ্ছে প্রতিশোধের আগুনও। কারণ ঘরের মাঠেই রেড ডেভিলদের ১-০ গোলে হারতে হয়েছে জুভদের বিপক্ষে।

উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগের ‘এইচ’ গ্রুপে এখন পর্যন্ত ম্যানইউর হার বলতে এটিই। অন্যদিকে মৌসুমে ইতালিয়ান সিরি’এ বা চ্যাম্পিয়নস লিগে অপরাজিত থেকেই ছুটছে জুভেন্টাস। হোসে মরিনহোর ম্যানইউকে আজ আরেকবার অগ্নিপরীক্ষা দিতে হবে।

এমনিতে চলতি মৌসুমে স্বস্তিতে নেই রেড ডেভিল কোচ মরিনহো। ধারাবাহিক ব্যর্থতায় চাকরিটাও ঝুলছে সুতোর ওপর। আজ যদি আবার পা ফসকায় তবে পর্তুগিজ কোচের চাকরিটাও সংশয়ের মুখে পড়ে যাবে। অবশ্য নিজেদের শেষ ম্যাচে বোর্নমুথের বিপক্ষে রোমাঞ্চকর জয়ে আত্মবিশ্বাস ফিরেছে ম্যানইউ শিবিরে। মরিনহোর মাথায় যে চাপের বোঝা তা নামাতে হলে জয় ছাড়া কোনো বিকল্প নেই আজ। তবে ম্যাচের আগে শিষ্যদের পাশে পাচ্ছেন স্পেশাল ওয়ান কোচের। মরিনহোর প্রশংসা করে ম্যানইউ মিডফিল্ডার নেমানজা মাতিচ বলেন, ‘তিনি (মরিনহো) একজন চমৎকার মানুষ। ওনার ওপরে অনেক চাপ থাকে কারণ সবাই তার থেকে জয় চায়। আমরা যখন জিতি তখন উনি খুব আনন্দিত হন।’

মহারণের আগে মুখ না খোলার জন্য সুনাম আছে জুভেন্টাস কোচ ম্যাস্যিমিলিয়ানো অ্যালেগ্রির। এমনিতে কম কথার মানুষ তিনি। যা প্রমাণ দেওয়ার তা দেন মাঠেই। এবারও মরিনহোর বিপক্ষে মুখোমুখি হওয়ার আগে স্বভাবসুলভ ভঙ্গিতে মুখটা বন্ধ রেখেছেন অ্যালেগ্রি। ম্যানইউর বিপক্ষে গত ম্যাচে পার্থক্য গড়ে দিয়েছিলেন পাওলো দিবালা। পরিসংখ্যানও কথা বলছে ম্যানইউর পক্ষে। ১৩ বারের দেখায় ৬ বার জয় পেয়েছে রেড ডেভিলরা। ৫ বার জিতেছে জুভেন্টাস। দুই ম্যাচে কোনো ফল হয়নি।

 

আজ মুখোমুখি

জুভেন্টাস - ম্যানইউ

ভি. প্লাজেন - রিয়াল মাদ্রিদ

বায়ার্ন মিউনিখ - এইকে এথেন্স

বেনফিকা - আয়াক্স

অলিম্পিক লিঁও - হফেনহেইম

ম্যানসিটি - শাখতার দানেৎস্ক

সিএসকেএস মস্কো - এএস রোমা

ভ্যালেন্সিয়া - ইয়ং বয়েজ

 

"