বাছাই পর্ব থেকে বাদ বাংলাদেশের মেয়েরা

প্রকাশ : ২৭ অক্টোবর ২০১৮, ০০:০০

ক্রীড়া ডেস্ক

দক্ষিণ এশিয়ার বয়সভিত্তিক নারী ফুটবলে বাংলাদেশের মুখ উজ্জল করেছিল বাংলাদেশের মেয়েরা। গত মাসেই নেপালকে হারিয়ে সাফ অনূর্ধ্ব-১৮ চ্যাম্পিয়নশিপের শিরোপা ঘরে তুলেছিল বাংলাদেশের নারীরা। দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার দলগুলোর বিপক্ষেও মুড়ি মুড়কির মতো গোল করে বাংলাদেশের মেয়েরা। বাদ যায় না মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোও। খেলতে নামলেই যারা প্রতিপক্ষকে ডুবাত গোল বন্যায়। কিন্তু এবারের চিত্রটা বিপরীত।

তাজিকিস্তানে চলমান এএফসি অনূর্ধ্ব-১৯ মেয়েদের বাছাই পর্বে গতকাল চাইনিজ তাইপের বিপক্ষে ২-০ গোলে হেরেছে বাংলাদেশ। গতকাল দুই অর্ধে দুই গোল হজম করা বাংলাদেশ প্রথম ম্যাচে দক্ষিণ কোরিয়ার বিপক্ষে হেরেছিল ৭-০ গোলে। টানা দুই হারে চূড়ান্ত পর্বের লড়াই থেকে ছিটকে পড়ল লাল-সবুজ কিশোরীরা।

গ্রুপে দক্ষিণ কোরিয়া থাকায় চ্যাম্পিয়ন হওয়ার আশা বাদ দিয়ে সেরা রানার্সআপ হওয়ার আশায় বাছাই পর্বের লড়াইয়ে নেমেছিল বাংলাদেশ। লক্ষ্য ছিল দক্ষিণ কোরিয়ার বিপক্ষে কম গোলের ব্যবধানে হার এবং বাকি প্রতিপক্ষ চাইনিজ তাইপে ও তাজিকিস্তানের বিপক্ষে বড় জয়। কিন্তু সেই আশা পূর্ণ হয়নি। ফলে রোববার তাজিকিস্তানের বিপক্ষে বাংলাদেশের শেষ ম্যাচটা এখন শুধুই নিয়ম রক্ষার। প্রাথমিক বাছাইয়ের ছয় গ্রুপের চ্যাম্পিয়ন ও সেরা দুই রানার্সআপকে নিয়ে হবে বাছাইয়ের দ্বিতীয় রাউন্ড। সেখান থেকে চার দল পাবে ২০১৯ সালে থাইল্যান্ডে হতে যাওয়া মূল পর্বের টিকিট।

অথচ গতকাল জয়ের জন্যই নেমেছিল গোলাম রব্বানি ছোটনের শিষ্যরা। কারণ ২০১৬ সালে ঢাকায় এএফসি অনূর্ধ্ব-১৬ বাছাই পর্বে এই চাইনিজ তাইপেকেই ৪-২ গোলে হারিয়েছিল সিরাত জাহান স্বপ্না, সানজিদা খাতুনরা। দুই বছরের ব্যবধানে স্বপ্নারা যেমন অনূর্ধ্ব-১৯ পর্যায়ে এসেছে, চাইনিজ তাইপের মেয়েরাও তো তাই। কিন্তু গতকাল পাত্তাই পেল না লাল-সবুজরা। অথচ পর্যাপ্ত প্রস্তুতি নিয়েই বাছাই পর্বে নেমেছিল বাংলাদেশ।

"