ইংল্যান্ডকে হারিয়ে স্পেনের শুভ সূচনা

প্রকাশ : ১০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০০

ক্রীড়া ডেস্ক

রাশিয়া বিশ্বকাপের আগে ঝড় বয়ে গিয়েছিল স্পেনের ওপর। আসর শুরুর শেষ মুহূর্তে পরিবর্তন আসে স্প্যানিশদের কোচিংয়ে। ধাক্কাটা ঠিকই পেয়েছিল লা রোজারা। ফেভারিট হওয়ার পরও স্বাগতিক রাশিয়ার বিপক্ষে হেরে বিশ্বকাপ স্বপ্ন বিসর্জন দিতে হয় সার্জিও রামোসদের। বিশ্বকাপের পর টালমাতাল স্পেনের দায়িত্ব নেন বার্সেলোনার সাবেক কোচ লুইস এনরিকে। কিন্তু মাস দুয়েক পেরিয়ে গেলেও নতুন কোচের অধীনে কোন প্রতিদ্বন্দ্বিতামূলক ম্যাচে নামা হচ্ছিল স্পেনের। বিশ্বকাপের ব্যর্থতা ভুলতে অবশেষে সেই সুযোগটা তারা পেয়েছে ইউরোপের নতুন টুর্নামেন্ট উয়েফা নেশনস লিগে। ম্যাচটিতে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে পিছিয়ে পড়েও ২-১ গোলের দুর্দান্ত জয় পেয়েছে স্পেন।

গ্যারেথ সাউথগেটের অধীনে বিশ্বকাপে সেমিফাইনাল খেলেছে ইংল্যান্ড। কিন্তু এবার নেশনস লিগের শুরুতে ধাক্কা খেতে হয়েছে থ্রি-লায়নসদের। ঘরের মাঠ ওয়েম্বেলিতে ১১ মিনিটের মধ্যে ইংলিশদের এগিয়ে দিয়েছিলেন ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড তারকা মার্কাশ রাশফোর্ড। কিন্তু ব্যবধানটা সাউথগেটের শিষ্যরা ধরে রাখতে পারে মাত্র দুই মিনিট। ১৩ মিনিটে অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ মিডফিল্ডার সাউল নিগুয়েজের গোলে সমতায় ফিরে স্পেন। দুই দলের হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের ৩২ মিনিটে স্পেনকে এগিয়ে দেন রদ্রিগো। ম্যাচের বাকি সময়টুকু সাউথগেটের শিষ্যরা গোল শোধের চেষ্টা চালালেও সফল হতে পারেনি। ৮১ মিনিটে রাশফোর্ড সহজ গোলের সুযোগ মিস না করলে অবশ্য ব্যবধানটা সমতায় থাকতে পারত। কিন্তু রামোস-আলোনসোরা কোনো প্রকার সুযোগ দেয়নি হ্যারি কেন, ডেলে আলিদের।

জয়টাকে অত্যন্ত গুরুত্বের সঙ্গে দেখছেন কোচ এনরিকে। অভিষেক ম্যাচের জয়ের পর স্প্যানিশ সংবাদমাধ্যম মার্কাকে তিনি বলেন, ‘এটা কেবল একটি ম্যাচ কিন্তু খুবই গুরুত্বপূর্ণ আমাদের জন্য। আমরা নতুন স্পেনের স্বপ্ন দেখছি। একটা দারুণ দলের।’

"