কোয়ার্টার ফাইনালে নাদাল-সেরেনা

প্রকাশ : ০৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০০

ক্রীড়া ডেস্ক

মাঝখানে কয়েকটি অঘটন বাদ দিলে ইউএস ওপেনে জয়ের ধারা অব্যাহত রেখেছে ফেবারিটরা। চতুর্থ ইউএস ওপেন গ্র্যান্ড সø্যাম জয়ের লক্ষ্যে কোয়ার্টার ফাইনাল নিশ্চিত করেছে ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন রাফায়েল নাদাল। ফ্ল্যাশিং মিডেতো শেষ আটে উঠার লড়াইয়ে নাদাল ৬-৩, ৬-৩, ৬-৭, ৬-৮ ও ৬-৪ গেমে হারিয়েছে ৩৭তম বাছাই জর্জিয়ান নিকোলজ বাসিলাশভিলিকে।

চলতি বছরে এ নিয়ে টানা ৪ বার কোয়ার্টার ফাইনালে উঠেছে নাদাল। ২০১১ সালেও টানা ৪ কোয়ার্টার ফাইনাল খেলার কৃতিত্ব আছে এই স্প্যানিশ টেনিস তারকার। গত আসরের চ্যাম্পিয়ন নাদাল এর আগে ইউএস ওপেন জিতেছিলেন ২০১০, ২০১৩ সালে। ৩২ বছর বয়সী তারকা এবার পাখির চোখ করেছেন চতুর্থ ইউএস ওপেনকে। তবে গত ম্যাচের মতো এবারও বড় পরীক্ষা দিতে হয়েছে ১৭টি গ্র্যান্ড সø্যামের মালিককে।

প্রথম ২ সেটে পিছিয়ে ছিলেন নাদাল। কিন্তু তৃতীয় সেট থেকে ঘুরে দাঁড়ান তিনি। গত ফ্রেঞ্চ ওপেনেও অবশ্য ২৬ বাসিলাশভিলির বিপক্ষে জয় পেয়েছিলেন নাদাল। ৩ ঘণ্টা ১৯ মিনিটের ম্যাচ শেষে তৃপ্তির ঢেঁকুর তোলে নাদাল বলেন, ‘সে (বাসিলাশভিলি) খুব জোরে বলে আঘাত করছিল। আমার মনে হচ্ছিল, আমি পয়েন্ট নিয়ন্ত্রণ করতে পারছিলাম না। আমাকে এক কঠিন ম্যাচ মোকাবিলা করতে হয়েছে। শারীরিকভাবে খুব চাপ গেছে তবে এখন ভালো অনুভব করছি।’

সেমিফাইনালে উঠার লড়াইয়ে নাদাল প্রতিপক্ষ হিসেবে পেয়েছে ৯তম বাছাই অস্ট্রিয়ান তারকা ডমিনিক থিমকে। প্রতিপক্ষ যে সহজ কেউ নেই তাও জানিয়ে দিয়েছেন নাদাল, ‘থিমের বিপক্ষে খুব কঠিন একটি ম্যাচ হবে। বলে হিট ও সার্ভ করার ক্ষেত্রে সে খুব শক্তিশালী।’

মেয়েদের এককে কাল কোয়ার্টার ফাইনাল নিশ্চিত করেছেন মার্কিন কন্যা সেরেনা উইলিয়ামস। তৃতীয় রাউন্ডে বড় বোন ভেনাস উইলিয়ামসকে হারানো পর জানিয়েছিলেন আত্মবিশ্বাস ফিরে পাওয়ার কথা। কাল সেটিরই প্রতিফলন দেখল ফ্ল্যাশিং মিডোর দর্শকরা। সাবেক নাম্বার বাছাই সেরেনা ৬-০, ৪-৬ ও ৬-৩ গেমে হারিয়েছে এস্তোনিয়ার কাইয়া কানেপিকে।

আর একটি ইউএস ওপেন জিতলে অস্ট্রেলিয়ান কিংবদন্তি টেনিস তারকা মার্গারেট কোর্টের সিংহাসনে ভাগ বসাবেন সেরেনা। এখন পর্যন্ত ৬টি ইউএস ওপেন জিতে দ্বিতীয় স্থানে আছেন এই স্বাগতিক টেনিস সেনসেশন। তার জন্য এবার লড়াকু মানসিকতা নিয়েই কোর্টে নামছেন তিনি।

"