ফ্রান্সে কর্মবিরতিতে লাখ লাখ সরকারি কর্মী

প্রকাশ : ০৬ ডিসেম্বর ২০১৯, ০০:০০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

ফ্রান্সে ইতিহাসের সবচেয়ে বড় কর্মবিরতি সংগঠিত হচ্ছে। সরকারি কর্মকর্তাদের অবসরভাতা কামানো ও চাকরির সময়সীমা বৃদ্ধির প্রতিবাদে কাজ বন্ধ করেছেন লাখ লাখ মানুষ। এই কার্যক্রমে অংশ নিয়েছে পুলিশ, আইনজীবী, হাসপাতাল কর্মী, স্কুল ও পরিবহনকর্মীসহ অনেক সরকারিকর্মী।

প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁর ইউনিভার্সাল পয়েন্টভিত্তিক অবসরভাতা ব্যবস্থায় অখুশি কর্মী ইউনিয়গুলো এই কর্মবিরতি মেনে নিয়েছিল। কর্তৃপক্ষ অনেক দিন ধরেই এই অচলাবস্থা কাটাতে মধ্যস্থতার চেষ্টা করে যাচ্ছে।

গতকাল বৃহস্পতিবার পর্যন্ত এই কর্মবিরতি চলার কথা থাকলেও কিছু ব্যবসায়িক নেতারা তা চালিয়ে যাওয়ার হুমকি দিয়েছে। তারা জানান, ম্যাক্রোঁ তার অবসর ব্যবস্থা না পাল্টানো পর্যন্ত কাজে ফিরবেন না তারা।

এক জরিপে দেখা যায়, ৬৯ শতাংশ ফরাসি এই কর্মবিরতি সমর্থন করেন। সমর্থনকারীদের বেশির ভাগই ১৮ থেকে ৩৪ বছর বয়সি।

এর আগে ১৯৯৫ সালে একবার অবসর ব্যবস্থার সংস্কার নিয়ে কর্মবিরতিতে গিয়েছিলেন সরকারি কর্মকর্তারা। সে সময় তিন সপ্তাহ ধরে এই বিরতি চলে। সরকার তাদের সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসতে বাধ্য হয়।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ক্রিস্টোফার কাস্টনার বলেছেন, দেশজুড়ে ২৫০টি বিক্ষোভ হওয়ার কথা রয়েছে। তিনি বলেন, আমরা জানি যে অনেক মানুষ আন্দোলনে অংশ নেবে। সেজন্য এটি ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে উঠেছে। আমি অনুরোধ করেছি সবাই যেন শান্তিপূর্ণভাবে আন্দোলন করেন। আমরা যদি দাঙ্গা বা সহিংসতা টের পাই তবে তাৎক্ষণিক গ্রেফতার করব।

 

"